মেইন ম্যেনু

অদ্ভুত বিয়ে পাগল: যার ৩৪ দেশে ৯৪টি স্ত্রী!

পাঠক, আপনারা হয়তো অনেক বিয়ে পাগলের কথা/গল্প শুনেছেন। তবে আজকে আমরা যার কথা বলবো তা শুনলে হয়তো অবকই হবেন। বিয়ে করাটা যেন তার নেশা। বয়স মাত্র ৩৫ বছর। এরইমধ্যে বিশ্বের ৩৪টি দেশে ৯৪ বার বিয়ের পিঁড়িতে বসেছেন তিনি। ফ্রান্স, ফিনল্যান্ড, জাপান, জার্মান, আমেরিকা, আর্জেন্টিনা ও আফ্রিকাসহ ৩৪টি দেশে এসব বিয়ে করেছেন তিনি। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বিয়ে করাটাই তার শখ।

অনেকের মনে প্রশ্ন উঠতে পারে কে এই তরুণ, কীভাবে যোগার করেন সবার খরচের টাকা। ব্রিটিনের জন অ্যাড্রেস নামের এই ব্যক্তি পেশায় একজন চিত্রশিল্পী। প্রতি মাসে ছবি অাঁকা ও অন্যান্য কাজের মাধ্যমে যে টাকা রোজগার করেন সেখান থেকেই কিছু নিজের জন্য সরিয়ে রেখে বাকি টাকা ৩৪ ভাগে ভাগ করে দেয় স্ত্রীদের। কিন্তু প্রত্যেকটি বিয়ের খবর এক স্ত্রীকে জানিয়েই পরের বিয়ে করেছেন তিনি। মানে ৩৪ জন স্ত্রীই জানে তাদের আরো ৩৩ জন সতীন আছে।

জন বলছেন, তিনি কাউকে ঠকান না। প্রেমের বিষয়ে তো নয়ই। বিয়ের আগে নিজের আগের সব প্রেম-পরিণয়ের কথা জানিয়ে দেন। কিন্তু প্রশ্ন হল সবচেয়ে বেশি সময় জন কোন স্ত্রীর সঙ্গে কাটান? জন বলেন, জার্মান প্রেমিকা আনার সঙ্গেই তিনি বেশি সময় কাটান। আনাও ছবি আঁকে। মাসে বড়জোড় দুই থেকে তিনজন স্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে পারেন তিনি। ১৩ নম্বর স্ত্রীর সঙ্গে তো বছর দুয়েক দেখাই হয়নি জনের।

৩৫ বছরের জন বিয়ে করা শুরু করেন ২৩ বছর বয়স থেকে। ৬ মাস আগে ৯৪ তম বিয়েটি করেন।