মেইন ম্যেনু

অধূমপায়ীদেরও হতে পারে বন্ধ্যাত্ব, দ্রুত মেনোপজ

প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ ধূমপানের সাথে বন্ধ্যাত্বের যোগসূত্র রয়েছে।তাছাড়া নারীদের নির্দিষ্ট সময়ের আগেই মেনোপজ ঘটতে পারে। মার্কিন এক গবেষণায় বিষয়টি উঠে এসেছে।

অতিরিক্ত মাত্রায় ধূমপানের ফলে মেনোপজ এক বা দুই বৎসর আগেই ঘটে যেতে পারে।অন্যদের চেয়ে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ধূমপায়ীদের এই ঝুঁকিটা বেশি।

নিউইয়র্ক রসওয়েল পার্ক ক্যানসার ইনস্টিটিউটের চিকিৎসক ড্যানিয়েল স্মিথ বলেন, প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ ধূমপায়ী এবং নারী স্বাস্থ্যে এর প্রভাব নিয়ে প্রাথমিকভাবে যতো গবেষণা হয়েছে তার মধ্যে এটি একটি।

সব নারীদের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ ধূমপান থেকে নিজেদের দূরে রাখা উচিত। গবেষণার ফলাফল এই বিষয়টাকে আরও বেশি জোরদার করেছে।

গবেষণায় বলা হয়, তামাকের ধূমপানে বিষাক্ত পদার্থ পাওয়া গেছে।সেখানে বিভিন্ন ক্ষতিকর প্রভাব রয়েছে। এটি প্রজনন ক্ষমতা এবং হরমোন উৎপাদনকে বাধাগ্রস্ত করে।

ধূমপানের অভ্যাস, প্রজনন সমস্যা এবং উইমেন্স হেলথ ইনিশিয়েটিভ অবজারভেশন স্টাডিজ (ডব্লিউএইচআইওএস) থেকে প্রাপ্ত ৯৩ হাজার নারীর প্রাকৃতিক মেনোপজের তথ্য থেকে গবেষকরা তথ্য ও প্রমাণ সংগ্রহ করেছেন।

গবেষণায় ৫০ থেকে ৭৯ বছর বয়সী নারীরা অংশগ্রহণ করেন। তাদের প্রত্যেকেরই মেনোপজ হয়েছে। ১৯৯৩ থেকে ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত এই তথ্য সংগ্রহ করা হয়।

গবেষণা তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা যায়, তামাকের প্রভাব বন্ধ্যাত্বের ঝুঁকি বাড়ায় এবং তাড়াতাড়ি মেনোপজ ঘটায়।

অধূমপায়ীদের সাথে বর্তমানে ধূমপান করছেন বা আগে করছেন এমন ব্যক্তিদের সাথে তুলনা করা হয়। দেখা যায়, ধূমপায়ীদের মধ্যে ১৪ শতাংশের বন্ধ্যাত্বের ঝুঁকি বেশি এবং ২৬ শতাংশ নারীর ৫০ বছরের আগেই মেনোপজ ঘটার সম্ভাবনা বেশি। যারা ১৫ বছর হওয়ার আগেই ধূমপান শুরু করেছেন এবং বেশি মাত্রায় ধূমপান করেন তাদের নির্দিষ্ট সময়ের ২২ মাস আগে মেনোপজ এসে গেছে।