মেইন ম্যেনু

অধ্যাপক রেজাউল হত্যাকাণ্ড: ‘একটাই দাবি বিচার চাই’

ইয়াজিম ইসলাম পলাশ, রাবি প্রতিনিধি: রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) অধ্যাপক এ এফ এম রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যার ১৬তম দিনেও ক্যাম্পাসে মানববন্ধন ও মিছিল হয়েছে। রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনের সামনে শিক্ষক সমিতির আয়োজনে সকাল ১০টায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি অধ্যাপক ড. আনন্দ কুমার সাহা বলেন, একজন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক হত্যার ১৫দিন পেরিয়ে গেলেও এখনও সরকারের উর্ধ্বতন কেউ আমাদের সঙ্গে দেখা করতে আসেনি। কেন? আমরা কি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা এতই নগণ্য। আর আমরা এ হত্যাকা-ের প্রতিবাদে মানববন্ধন, মিছিল, অবস্থান ধর্মঘট পালন করছি, আর এজন্য কি আমাদেরকে হত্যা করা হবে? আমরা চাই যারা এ নৃশংস ও নির্মম হত্যাকা-ের ঘটনা ঘটিয়েছে তাদের দৃষ্টান্তমূলক বিচার। আমাদের একটাই দাবি বিচার চাই।’

এসময় ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক ড. চিত্তরঞ্জন মিশ্র বলেন, আমরা শিক্ষক রেজাউল হত্যাকা-ের বিচার না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যেতে চাই। আমরা রাজশাহী নগরের সকল নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিদের সম্পৃক্ত করে সমন্বিত আন্দোলন করবো । আর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আমাদের এখানে আসতে চেয়েছে আমরা চাই তার মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছেও আমাদের এই দাবি জানাতে। আমরা ছুটির পরে ছাত্র-শিক্ষকদের সঙ্গে নিয়ে ‘৬৯র গণঅভ্যুত্থানের মতো এই ক্যাম্পাসে আবারো আন্দোলন গড়ে তুলবো। যাতে করে এই শিক্ষক হত্যাকা-ের সংস্কৃতি বন্ধ হয়।

শিক্ষক সমিতির যুগ্ম সম্পাদক অধ্যাপক ড. ইসমাইল হোসেনের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন, শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. মো. শহীদুল্লাহ্, সাধারণ সস্পাদক ড. শাহ্ আজম ও ফলিত রসায়ন ও রসায়ন প্রকৌশল বিভাগের দিলীপ কুমার সরকার। মানববন্ধন থেকে আরো জানানো হয় পরবর্তী ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত এ মানববন্ধন কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে।

মানববন্ধন শেষে ইংরেজি বিভাগের শিক্ষক শিক্ষার্থীদের একটি মৌন মিছিল ক্যাম্পাসে প্রধান সড়কগুলো প্রদক্ষিণ শেষে মুকুল প্রতিবাদ ও সংহতি মঞ্চে গিয়ে সমাবেশ করে।