মেইন ম্যেনু

অনৈতিক অবস্থায় কোচিং সেন্টারের শিক্ষক-ছাত্রী আটক!

জাকারিয়া শেখ, গোপালগঞ্জ থেকেঃ অনৈতিক অবস্থায় বাজারের পাশের একটি কোচিং সেন্টারের শিক্ষক ও ছাত্রীকে আটক করে থানা পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। ঘটনাটি ঘটেছে গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায়। শনিবার দুপুরে উপজেলার রাধাগঞ্জ বাজারে থেকে তাদেরকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।

উপজেলার গঁচাপাড়া গ্রামের দানিয়েল সরকারের ছেলে যোসেফ সরকার ও মান্দ্রা গ্রামের মিজানুর শেখের মেয়ে লিমা খানম। স্থানীয় সূত্র জানায়, ওই কোচিং সেন্টারের শিক্ষক যোসেফ সরকার ও কোটালীপাড়া কাজী মন্টু কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রী লিমা খানম দীর্ঘ ৪ বছর ধরে কোচিং কওে আসছে।

এর সুবাদে দু’জনের মধ্যে গভীর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে সেটি দৈহিক সম্পর্কে রুপ নেয়। বিষয়টি ধরতে আগে থেকেই ওঁৎ পেতে ছিল স্থানীয়রা। শনিবার দুপুরে কোচিং সেন্টার থেকে অনৈতিক অবস্থায় ওই শিক্ষক-ছাত্রীকে হাতে নাতে ধরে ফেলে স্থানীয়রা।

অভিযুক্ত শিক্ষক যোসেফ সরকার অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ করা হয়েছে তা- মিথ্যা ও বানোয়াটা। ষড়যন্ত্রভাবে আমাকে হেয় করার জন্য এ অভিযোগ আনা হয়েছে। কোটালীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ কামরুল ইসলাম ফারুক বলেন, ধর্ষণের অভিযোগে ওই শিক্ষককে আটক করা হয়েছে। এব্যাপাওে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।