মেইন ম্যেনু

অফিসের জরুরী ৩ এটিকেট

অফিসে সবার মাঝে আকর্ষণীয় হতে গিয়ে আপনি হয়ত এমন কোন আচরণ করে বসছেন যা সবার কাছে লাগছে দৃষ্টিকটু। আবার হয়ত নিজের মত গুটিয়ে থাকতে গিয়ে হয়ে দাড়াচ্ছেন একটি প্রশ্নবোধক চিহ্ন। অফিসকে পুরোপুরি প্রফেশনালি নেওয়া খুবই জরুরী। তাহলে সবার সাথে আপনার সম্পর্কও প্রফেশনাল থাকবে। মেনে চলুন দরকারি এই ৩টি এটিকেট-

পোশাক
অফিসে যদি কোন ড্রেস কোড থাকে তাহলে তো সেটিই পরতে হবে। যদি না থাকে তাহলেও পোশাকের ব্যাপারে পরিবেশ বুঝে সচেতনতা জরুরী। আপনি যে অফিসে কাজ করছেন সে অফিসটি যদি কর্পোরেট অফিস হয় তবে স্ট্যান্ডার্ড প্রকাশ করে এমন পোশাকই বেছে নিতে হবে আপনাকে। অনেক অফিসেই ক্যাজুয়াল পোশাককে স্বাগত জানানো হয়। নতুন চাকরিতে ঢুকে প্রথমদিন কয়েকজনকে ক্যাজুয়াল পোশাকে দেখে নিজেও পরে আসবেন না যেন! আগে কিছুদিন পর্যবেক্ষণ করুন। যদি দেখেন পোশাকের ব্যক্তিগত পছন্দ সকল কর্মীর জন্যই প্রযোজ্য তাহলে আপনিও পরতে পারেন। তবে বেশীরভাগ অফিসই কর্মীদের ফরমাল পোশাকই পছন্দ করেন।

প্লিজ এবং থ্যাংক ইউ
ভদ্রতা, অমায়িক ব্যবহার কার না ভাল লাগে বলুন? আর অফিসে এর চেয়ে যাদুকরী আর কিছু হয় না। সবার সাথে ভাল সম্পর্ক বজায় রাখতে ব্যবহার করুন ‘প্লিজ’ এবং ‘থ্যাংক ইউ’ এই শব্দ দুইটি। অর্থাৎ, সকল কাজে অনুমতি নিন, মতামত নিন। একসাথে মিলে কাজ করুন। আদেশ নয় অনুরোধ করে মিষ্টি হেসেকাজ করিয়ে নিন। অবশ্যই কৃতজ্ঞতাস্বরূপ ধন্যবাদ জ্ঞাপন করুন।

টিমে থাকুন
অফিসে বসের মন জয় করতে গিয়ে কখনো বিচ্ছিন্ন হয়ে কাজ করবেন না। টিমের সাথে সংযোগ রক্ষা করুন সবসময়। একত্রে থাকার অনুশীলন করুন। তার মানে এই নয় যে, আলাদা দল গড়ে তুলবেন! এতে আপনার চাকরি পর্যন্ত চলে যেতে পারে। তাই নিজের কাজের সাথে সংশ্লিষ্ট সবার সাথে মিলেমিশে কাজ করুন। সব কাজ যেমন একা করবেন না, তেমনি নিজের কাজ অন্যদের দিয়ে করাবেন না।