মেইন ম্যেনু

অভিনেত্রীর সঙ্গে যেভাবে যৌন সম্পর্কে বাধ্য করেন ভারতীয় ধর্মগুরু

ভারতে ধর্ম গুরুদের নিয়ে অনেকদিন থেকে বিতর্ক চলছে। তা এখন নতুন মাত্রা পাচ্ছে। স্বঘোষিত ধর্মগুরু রাধে মাকে নিয়ে বিতর্ক যেন আর থামছেই না। এ বার তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগের আঙুল তুললেন ‘বিগ বস’ খ্যাত অভিনেত্রী ডলি বিন্দ্রা। ডলির অভিযোগ, এক ভক্তের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের জন্য তাঁকে জোর করেছিলেন রাধে মা।

তাঁর কথায়, ‘‘রাধে মা আমাকে এক অচেনা লোকের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক করার জন্য জোর করেছিলেন। প্রথমে আমি তাতে রাজি না হলে আমাকে প্রাণে মারাও হুমকি দেন ওর অনুরাগীরা।’’ কিন্তু এ নিয়ে রাধে মা-র বিরুদ্ধে মুম্বই পুলিশের কাছে কোনও লিখিত অভিযোগ জানাননি ডলি।

কারণ তিনি মনে করেন, রাধে মা-র ক্ষেত্রে এ ধরনের কাজ খুব স্বাভাবিক। এমনকি সকলের সামনে রাধে মা-র ছেলেও ডলির শ্লীলতাহানি করেন বলে অভিযোগ।

সানি লিওনের ভক্ত এই ধর্মগুরু রাধে মা বারবারই বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন। সম্প্রতি প্রয়াত কেন্দ্রীয়মন্ত্রী প্রমোদ মহাজনের পুত্র রাহুল মহাজন তাঁর টুইটারে মিনি স্কার্ট পরা রাধে মা-র কয়েকটি ছবি পোস্ট করেন।

রাহুল লেখেন— গেস হু? ছবিতে ধর্মগুরুর ভূমিকায় নয়, মিনি স্কার্টে লাস্যময়ী ভঙ্গিমায় দেখতে পাওয়া যায় তাঁকে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ‘হট অ্যান্ড সেক্সি’ রাধে মাকে দেখে মুহূর্তে ভাইরাল হয়ে যায় রাহুল মহাজনের টুইটার অ্যাকাউন্টটি। এর পরই রাধে মা-র বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ সামনে আসতে থাকে। যার নবতম সংযোজন ডলির অভিযোগ।



(পরের সংবাদ) »