মেইন ম্যেনু

আইনজীবীর সঙ্গে প্রেমের ক্ষেত্রে যে বিষয়গুলো মাথায় রাখবেন

ফারিন সুমাইয়া : কথায় আছে ভালোবাসা মানে না কোনো বাঁধা। আবার এই ভালোবাসাতেই অন্ধ হয়ে অনেকে ঠকে যাচ্ছেন দিনের পর দিন। কেউ কেউ আবার ছোট ছোট মিথ্যা কথার পাশাপাশি লুকিয়ে থাকেন অনেক কিছু। কিন্তু কখনো কি ভেবে দেখেছেন এই ভালোবাসার মানুষটিই যদি আপনার মিথ্যাকে এক নিমিষে ধরে ফেলে। তার কাজই যদি হয় মিথ্যা ধরে ফেলা তবে কী করবেন আপনি! ইচ্ছে করে হোক কিংবা মজা করেই হোক এই মিথ্যা অনেক সময় নষ্ট করে দিতে পারে প্রেমের সম্পর্ক। আর এই ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি যুক্তিবাদী হয় আইনজীবী কিংবা উকিল। চলুন জেনে নেই আইনজীবীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়াতে চাইলে আপনাকে যেসব বিষয়ে সচেতন থাকতে হবে।

বোঝাপড়া
ভালোবাসার ক্ষেত্রে আইনজীবীরা তাদের সম্পর্কের ক্ষেত্রে নিজেদের শান্ত রাখেন এবং অপর মানুষটিকে বোঝার চেষ্টা করেন। আপনি যদি আইনজীবীর প্রেমিক কিংবা প্রেমিকা হয়ে থাকেন তবে খেয়াল রাখুন আপনার কাজের দিকে। প্রমাণও ক্ষেত্র বিশেষে রাখতে পারেন। যাতে তার মনে থাকা প্রশ্নের উত্তর দিতে পারেন। আর এক্ষেত্রে আপনাকে পালন করতে হবে বড় ভূমিকা। তার মতো করে কিছুটা বুঝে নেওয়া আর তাকে আপনার সম্পর্কে বুঝিয়ে বলা।

ব্যস্ততা
একজন আইনজীবীর কাজ থাকে নানাভাবে আর নানা জায়গা নিয়ে। তাকে কাজের মাঝে ডুবে থাকতে হয় সবসময়। তাই তার থেকে সময় পাওয়া কঠিন। এই ক্ষেত্রে আইনজীবীর সাথে প্রেম করার ক্ষেত্রে নিজেকে এই ক্ষেত্রে তৈরি করে নিন। নয়তো এই বিষয় নিয়ে সৃষ্টি হতে পারে বড় দ্বন্দ্ব।

একা থাকা
আপনি যখন প্রেমের মিষ্টি মিষ্টি কথা বলছেন প্রায়ই দেখবেন সে তার কেস কিংবা ফাইল নিয়ে ব্যস্ত। তাকে কিছু বলাও আপনার পক্ষে যখন সম্ভব না তখন আপনার সঙ্গী এই একাকীত্ব। তবে আইনজীবীরা খুবই মিশুক স্বভাবের হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে আপনি যতই রাগ করে থাকুন সে তার চতুর বুদ্ধি দিয়ে আপনার রাগ ঠিকই ভাঙিয়ে নেবে।

প্রতিশ্রুতি
আইনজীবীদের ক্ষেত্রে এই বিষয়টি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। আপনি যখন তাকে দিয়ে কোনো কথা প্রতিশ্রুতি হসেবে নিয়ে নেন তখন সে তা তার সবটুকু দিয়ে পূরণ করে। তবে এই ক্ষেত্রে তাদের রাগও থাকে অনেক। তাই কোন বিষয়ে তাদের রাগ বেশি আর কোন বিষয়ে রাগ কম তা জেনে বুঝে কাজ করুন।



« (পূর্বের সংবাদ)