মেইন ম্যেনু

আইসিসিতেও যেতে চান না মনোহর

বোর্ড অব কন্ট্রোল ফর ক্রিকেট ইন ইন্ডিয়ার (বিসিসিআই) প্রেসিডেন্ট পদ থেকে পদত্যাগ করার পর শশাঙ্ক মনোহর জানিয়েছেন, আইসিসির চেয়ারম্যান পদের নির্বাচনের জন্য বিসিসিআইয়ের পদ ছাড়েননি তিনি। তবে ঠিক কী কারণে তিনি ভারতীয় বোর্ডের মতো প্রতিষ্ঠানের সর্বোচ্চ পদে থাকলেন না, তা স্পষ্ট করে বলেননি। শুধু এতটুকু বলেছেন, লোধা কমিটির কিছু নিয়মের সঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিতে পারছিলেন না। অনেক চিন্তাভাবনা করে ‘বিবেকের তাড়নায়’ পদত্যাগ করেছেন।

আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে চেয়ারম্যান পদের জন্য আইসিসিতে গোপন ব্যালটের নির্বাচন হবে।

‘গোটা পৃথিবীর সবাই জানেন বিসিসিআইয়ের এই পদ কতটা ক্ষমতাধর। আমি একইসঙ্গে এই পদে থেকে আইসিসির চেয়ারম্যানের পদ টিকিয়ে রাখতে পারতাম।’ টাইমস অব ইন্ডিয়ার সঙ্গে আলাপকালে বলেন মনোহর।

আগামী জুন পর্যন্ত তার এই পদে থাকার কথা ছিল। কিন্তু নিয়মানুযায়ী বিসিসিআইয়ের পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর কারণে আইসিসির পদও চলে গেল তার।

বিসিসিআইতে শ্রীনি যুগের পর দায়িত্ব গ্রহণ করেন এই মনোহর। একই সঙ্গে আইসিসির চেয়ারম্যান পদেও বসেন। দায়িত্ব নেয়ার পরই ঘোষণা দেন দুই মাসের ভেতর বিসিসিআইকে নতুনভাবে গড়বেন। সব দেশের জন্য ভালো হয় এমন পরিকল্পনাও বাস্তবায়ন করতে চেয়েছিলেন আইসিসিতে। অনেকেই বলাবলি করেন, আইসিসির ‘তিন মোড়ল নীতি’তে এতটুকু সমর্থন ছিল না জনপ্রিয় এই ক্রীড়া সংগঠকের।

মনোহর জানিয়েছেন, পদত্যাগ করার কারণে তার মনে কোনো আক্ষেপ নেই। মাস কয়েক আগে থেকে সহকর্মীদের সঙ্গে পদত্যাগের ব্যাপারে আলোচনা শুরু করেন।

‘এই সিদ্ধান্ত আমি হঠাৎ করে নেইনি। পদত্যাগের খবর জানাজানি হওয়ার চারদিন আগে বোর্ড সেক্রেটারি অনুরাগ ঠাকুরকে পদত্যাগপত্র পাঠাই। আমি অবশ্যই বলব, এই পদটি আমাকে চাপে ফেলে দিয়েছিল। কোনো পদে থেকে গুরুত্বপূর্ণ কিছু করতে না পারলে কখনোই আমি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি না।’ ভারতীয় ক্রিকেট প্রশাসনে কিছু একটা ঝড় চলছে, এই কথায় কি সেই ইঙ্গিত দিলেন মনোহর?