মেইন ম্যেনু

‘আপনার বাবা ইফতার নিতেন, আপনিও নিয়ে যান’

শুরু হয়েছে পবিত্র মাহে রমজান। প্রতি বছরের মতো এবারও পুরান ঢাকা ঐতিহাসিক চকবাজারে বসেছে ইফতারের বাজার। বাহারি ইফতারের এ বাজারে ঝটিকা পরিদর্শনে গেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন।

মঙ্গলবার প্রথম রোজার দিন বিকেল ৩টায় ঐতিহাসিক চকবাজারে এ পরিদর্শন করেন। ইফতারের গুণগত মান, স্বাদ গন্ধ ইত্যাদি যাচাইয়ে মেয়রের এ ঝটিকা পরিদর্শন।

এ সময় মেয়র বিক্রেতাদের উদ্দেশ্য বলেন, খাবারে কোন প্রকার বেজাল মেশানো যাবে না। কেহ যদি এ অনৈতিক কাজ করে তবে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শত শত বছরের ঐতিহ্য ধরে রেখেছে পুরান ঢাকার এ ইফতারের দোকানগুলো। মোগল আমল থেকেই চক বাজারে বসে আসছে এ ইফতারের মেলা।

সত্তর ঊর্ধ্বো এক ইফতার বিক্রেতার সাথে কথপোকথনের সময় ওই বিক্রেতা মেয়রকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনার বাবা মেয়র হানিফও আমার এখান থেকে ইফতার নিতো আপনিও নিয়ে যান।

ঐতিহসিক এ চকবাজারে সরেজমিনে ঘুরে দেখাগেলো বিশাল শিকের সঙ্গে জড়ানো সুতি কাবাব, টিকা কাবাব, ডিম চপ, জালি কাবাব, শাকপুলি, কাচ্চি, তেহারি, মোরগ পোলাও, কবুতর ও কোয়েলের রোস্ট, খাসির রানের রোস্ট, মোল্লার হালিম, নূরানি লাচ্ছি, দইবড়া, পনির, পেস্তা বাদামের শরবত, লাবাং, ছানামাঠা, কিমা পরটা, বিভিন্ন ধরনের কাটলেট, ছোলা, মুড়ি, ঘুগনি, বেগুনি, আলুর চপ, জালি কাবাব, পিঁয়াজু, আধাকেজি থেকে ৫ কেজি ওজনের জাম্বো সাইজ শাহী জিলাপি।