মেইন ম্যেনু

আপনার রান্নায় এই ৫টি দারুণ মশলা ব্যবহার করছেন কি?

“মশলা”- একটি রান্নাকে স্বয়ংসম্পূর্ণ করতে এর জুড়ি নেই। খাবারকে মজাদার করতে মশলা ব্যবহার করা হয়। একেক এলাকায় একেক রকম করে রান্না করা হয়। রান্নায় ব্যবহারও হয় বিভিন্ন বিভিন্ন মশলা।

কিন্তু কিছু সাধারণ মশলা আছে যা বিশ্ব জুড়েই মানুষ ব্যবহার করে থাকে। আবার কিছু মশলা যা আমাদের সবার রান্নায় থাকা উচিত। এই মশলাগুলো শুধু আপনার রান্নার স্বাদ বৃদ্ধি করে না, আপনার সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করে থাকে।

১। দারুচিনি
দারুচিনি- সাধারণ এই মশলা প্রায় সব বাসার রান্নাঘরেই পাওয়া যায়। দারুচিনিতে প্রচুর অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল উপাদান আছে যা আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য বেশ উপকারী। ফ্রুট সালাদ, ফল, সবজি সিদ্ধ বা কেক তৈরিতে অল্প করে দারুচিনি গুঁড়ো ছিটিয়ে দিন। এটি খাবারের স্বাদ দ্বিগুণ বাড়িয়ে দেবে।

২। হলুদ
হলুদের অ্যান্টি অক্সিডেণ্ট, অ্যান্টি ইনফ্লামেনটরী, অ্যান্টি সেপটিক উপাদান দেহের বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ করে থাকে। রান্নায় হলুদের ব্যবহার খাবারের স্বাদ বৃদ্ধির সাথে সাথে মেটাবলিজম বৃদ্ধি করে দেহের চর্বি কাটতে সাহায্য করে।

৩। জিরা
জিরা তার সুগন্ধের জন্য বিখ্যাত। মধ্যপ্রাচ্যের মশলা হলেও এশিয়া দেশগুলোর রান্নায় এটি ব্যবহার করা হয়ে থাকে। এর অ্যান্টিসেপটিক উপাদান হজমশক্তি বৃদ্ধি করে এবং দেহের ক্ষতিকর পদার্থ দূর করে থাকে।

৪। আদা
আদাকে ‘ইউনিভার্সাল মেডিসিন’ বলা হয়ে থাকে। এর ঔষধি গুণাবলি সম্পর্কে কম বেশি সবার জানা। সর্দি কাশি থেকে শুরু করে অনেক অসুখ সমাধান করে থাকে আদা। এটি রান্নার স্বাদও বৃদ্ধি করে দেয় অনেকখানি।

৫। মেথি
হজমের সমস্যা দূর, শ্বাস প্রশ্বাসের সমস্যা, নার্ভের সমস্যা, ত্বকের সমস্যা এমনকি চুলের সমস্যা দূর করে থাকে মেথি। সারা রাত মেথি এক গ্লাস পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন সকালে খালি পেটে পান করুন। এটি আপনার রক্তে সুগারের পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ রাখতে সাহায্য করে। এই মশলাটি সাধারণত ডাল এবং সবজিতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

প্রতিদিন খাবারে ব্যবহার করুন এই মশলাগুলো আর দূরে রাখুন অনেক রোগকে।