মেইন ম্যেনু

আবার দেখা হচ্ছে সেরেনা-শারাপোভার

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালেই দেখা হচ্ছে টেনিস জগতের দুই পুরনো শত্রু সেরেনা উইলিয়ামস ও মারিয়া শারাপোভার। রোববার শেষ ষোলোতে এই দুজনই নিজ নিজ ম্যাচে জয় পেয়েছেন। তাই মেলবোর্ন পার্কে গত বছরের ফাইনাল ম্যাচটা এবার কোয়ার্টারেই হয়ে যাচ্ছে।

পঞ্চম বাছাই হিসেবে খেলা রাশিয়ান গ্লামার গার্ল শারাপোভা হারিয়েছেন সুইজারল্যান্ডের বেলিন্ডা বেনেসিসকে। দুই ঘণ্টারও বেশি সময়ের লড়াই শেষে শারাপোভা ৭-৫, ৭-৫ ব্যবধানে সরাসরি সেটেই ম্যাচ জিতেন। টুর্নামেন্টে প্রথম কোনো ম্যাচে চ্যালেঞ্জিং অবস্থানে থেকে জিততে হল শারাপোভাকে। তাই কঠিন জয়ে আনন্দিত এই রাশিয়ান টেনিস তারকা। শারাপোভা বলেন, ‘এটাই প্রথম ম্যাচ যেখানে আমাকে চ্যালেঞ্জের মুখে জিততে হয়েছে। আমার কাছে মনে হয়েছে যেন খাদের কিনারে ছিলাম। তবে সেই অবস্থা উৎরে যেতে পারাটাকে ইতিবাচকভাবে দেখেছি।’

কোয়ার্টারে শারাপোভার প্রতিদ্বন্দ্বী আমেরিকান কৃষ্ণকলি সেরেনা উইলিয়ামসকে অবশ্য শেষ ষোলোতেও রুশ প্রতিদ্বন্দ্বীকেই মোকাবেলা করতে হয়েছে। র‌্যাঙ্কিংয়ে ৫৮ নম্বরে থাকা মার্গারিটা গাসপারিয়ানকে ৬-২, ৬-১ গেমে উড়িয়ে দেন সেরেনা। শারাপোভা শেষবারের মতো মেলবোর্ন পার্কে শিরোপা জেতেন ২০০৮ সালে। আর সেরেনা এই টুর্নামেন্টে ছয় শিরোপা জিতেছেন। তিনি বর্তমান চ্যাম্পিয়নও। গত বছর এই শারাপোভাকেই ফাইনালে হারিয়েছিলেন আমেরিকান কৃষ্ণকলি।

এদিকে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠেছেন জাপানের কেই নিশিকোরি। যিনি ফ্রান্সের জো উইলফ্রেডো সোঙ্গাকে ৬-৪, ৬-২, ৬-৪ গেমে হারিয়েছেন। সপ্তম বাছাই হিসেবে খেলা নিশিকোরি ২০১৪ সালে ইউএস ওপেনের ফাইনালে খেলেছেন। আর ২০১২ ও গত বছর খেলেছেন কোয়ার্টারে।