মেইন ম্যেনু

‘আমরা জানি না তিনি কী কারণে আসতে চাচ্ছেন না’

ঘটনা ২০১৩ সালের। বাংলাদেশের রাজনৈতিক অস্থিরতার মধ্যেই চলছিল ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগ। সে সময় বাংলাদেশে খেলতে এসেছিলেন ইংল্যান্ডের সীমিত ওভারের অধিনায়ক ইয়ন মরগ্যান। অভিজ্ঞতা ভালো ছিলো না। রাজনৈতিক অবস্থায় ভীত ছিলেন তিনি।

আর গেল এক জুলাই হলি আর্টিজানে জঙ্গি হামলা, সব মিলিয়ে বাংলাদেশ সফরকে না বলে দেওয়ারই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মরগ্যান। তবে এটা তার একান্তই ব্যক্তিগত ব্যাপার বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশের সীমিত ওভারের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা।

মরগ্যানের সিদ্ধান্ত সম্পর্কে বাংলাদেশের শীর্ষ দৈনিক প্রথম আলোকে মাশরাফি বলেন, ‘এটা একদমই তার নিজস্ব সিদ্ধান্ত। আমরা জানি না তিনি কী কারণে আসতে চাচ্ছেন না। হয়তো পরিবার থেকে বাধা দিচ্ছে। এসব ক্ষেত্রে যে কারও নিজের সিদ্ধান্ত নেওয়ার অধিকার আছে। আর যারা আসবে তারাও নিশ্চয়ই বুঝেশুনেই আসবে।’

১৬ সেপ্টেম্বর দল ঘোষণা হলেই চূড়ান্ত হলেই কেবল জানা যাবে কারা আসছে আর কারা আসছে না। তবে এ নিয়েও চিন্তিত নন অধিনায়ক। তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে বড় কথা হলো, ইসিবি বাংলাদেশে দল পাঠাতে রাজি হয়েছে এবং ইংল্যান্ড দল আমাদের এখানে খেলতে আসবে। আমাদের এখান থেকে পর্যাপ্ত নিরাপত্তার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। ইসিবিও এখানে খেলাটা নিরাপদ মনে করছে। এখন তারাই ভালো বুঝবে কাদের পাঠাবে আর কাদের পাঠাবে না।’

সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে, ৩০ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশে আসার কথা ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের। তিন ওয়ানডে ও দুই টেস্টের সিরিজ শুরু হবে সাত অক্টোবর,মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে।