মেইন ম্যেনু

আমিরাতকেও হালকাভাবে নিচ্ছে না বাংলাদেশ

প্রথম ম্যাচেই ভারতের কাছে হেরে কিছুটা হতাশ বাংলাদেশ শিবির। এর রেশ কাটতে না কাটতেই মাশরাফি-সাকিবরা মুখোমুখি হচ্ছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের। শুক্রবার মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে এশিয়া কাপে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হচ্ছে দুই দল। প্রতিপক্ষ আইসিসিরি সহযোগী সদস্য দেশ হলেও বাংলাদেশ মোটেও হালকাভাবে নিচ্ছে না তাদের।

আরব আমিরাত মূলত বাছাইপর্বে চ্যাম্পিয়ন হয়েই এশিয়া কাপের মূল পর্বে খেলতে আসে। বাছাইপর্বে তারা আফগানিস্তান, হংকং ও ওমানের বিপক্ষে তিন ম্যাচের তিনটিতেই জিতেছে।

তাই বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা প্রতিপক্ষকে মোটেও খাটো করে দেখছেন না। তিনি বলেন, ‘জয়ে ফিরতে হলে আমাদের পরবর্তী ম্যাচটি জিততেই হবে। প্রতিপক্ষ যে দলই হোক, তাদের মোটেও হালকাভাবে নেওয়ার অবকাশ নেই। কারণ এই পর্যায়ে যারা খেলতে এসেছে তারা প্রত্যেকেই ভালো কিছু করার সামর্থ্য রাখে।’

তাই জিততে হলে এই ম্যাচের নিজেদের সামর্থ্যের শতভাগ দিয়ে খেলতে হবে বলে মনে করেন তিনি, ‘আমাদের মনে রাখতে হবে, টি-টোয়েন্টিতে যেকোনো দলের বিপক্ষে যেকোনো কিছুই ঘটতে পারে। তাই আরব আমিরাতের বিপক্ষে জিততে হলেও আমাদের সামর্থ্যের শতভাগ দিয়েই খেলতে হবে। প্রত্যেক খেলোয়াড়েরই নিজেদের উজাড় করে দিতে হবে। কোনোভাবেই এটি মাথায় আনা যাবে না প্রতিপক্ষ আমাদের চেয়ে দুর্বল।’

এই ম্যাচের আগে বৃহস্পতিবার পুরোদিনই বিশ্রামে ছিল বাংলাদেশ দল। প্রত্যেক খেলোয়াড়ই হোটেলে অনেকটা শুয়ে-বসে কাটিয়েছেন। কেউ কেউ অবশ্য নিজ উদ্যোগে জিমে এবং সুইমিংপুলে কিছুটা সময় পার করেছেন।

আগের দিন ভারতের কাছে হারের পর মূলত খেলোয়াড়দের মনোবল চাঙ্গা করতেই এদিন বিশ্রামে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট। ভারতের কাছে সেই ম্যাচে মাশরাফিরা হেরেছিল ৪৫ রানে।