মেইন ম্যেনু

‘আমি প্রতারক নই, আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হয়েছে’

আমি প্রতারক নই। কারো সঙ্গে প্রতারণা করিনি। উল্টো আমাকে বিপাকে ফেলতে আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। গতকাল উত্তরণ সাংস্কৃতিক সংগঠন মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলন করে আরণ্যক মাল্টিমিডিয়া করপোরেশনের প্রধান কাওসার জাহান জাকিয়া এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ২০১৫ সালের নভেম্বর মাসে রংপুর সেনপাড়ায় R.H.B লিমিটেড নামে হাফিজুর রহমানের এনজিওতে চাকরি করতে আসি।

সেখানে উক্ত প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান তার অফিসে চাকরি এবং সদস্য করে নেবে বলে আমার কাছ থেকে দেড় লক্ষ টাকা নেয়। কিন্তু সেখানে যাওয়ার পর দেখি রাশেদ সরকার এবং আরো কিছু লোক Newstv.24 নামে একটি Youtube Channel চালায় এবং সেখানে নাহিদা আক্তার, সোনিয়া, মুরাদ, সাকিব, তানভীরসহ অনেক যুবক-যুবতী চাকরি করতে আসে। সেই অফিসে কোনো নিয়ম-শৃঙ্খলা ছিল না, কেউ বেতন পায় না, আর অনেক পাওনাদার প্রতিদিন অফিসে আসে। আমি এসব দেখে আমার টাকা ফেরত চাই এবং অফিসে যেতে আপত্তি জানাই।

সেই সময় তারা আমার সঙ্গে বাকবিতণ্ডাসহ বিরোধ সৃষ্টি করে। তারপর স্থানীয় কাউন্সিলর, পুলিশ প্রশাসন, চ্যানেল টুয়েন্টিফোরের সাংবাদিক জুয়েল আহমেদ, মাইটিভির নজরুল ইসলাম রাজুর সহযোগিতায় উক্ত টাকার পরিবর্তে অফিসের চেয়ার-টেবিল, কম্পিউটার আমাকে দলিল করে দেয়া হয়। ওই সময় সেখানে কর্মরত তানভীর আহমেদ শুভ আমাকে প্রস্তাব দেয় ওইসব আসবাবপত্র দিয়ে একটি অফিস করার। সে আরো বলে, আপু আমরা সবাই আপনাকে সহযোগিতা করবো এবং আমাদেরও সম্মান বাঁচবে। ফ্যাশন ডিজাইন ও সাংবাদিকতার প্রতি দুর্বলতা থাকার কারণে আমি ‘আরণ্যক মাল্টিমিডিয়া করপোরেশন’ নামে ২০১৬ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ৫২, ইসলামবাগ, রংপুরে একটি প্রতিষ্ঠান করি।

যার অধীনে Channel-7 online tv এবং The Daily dhal Newspaper-এর জন্য তথ্য অধিদপ্তর, ঢাকায় আবেদন করি। সেই সঙ্গে আরণ্যক ফ্যাশন ডিজাইনের কার্যক্রম চালিয়ে যাই। এ কার্যক্রম চলাকালীন তানভীর আহমেদ তার পরিচিত রবীন, আতিক, মুরাদসহ কয়েকজনকে নিয়ে এসে বলে তারা আমাকে আমার কাজে সহযোগিতা করবে। কিছুদিন যাওয়ার পর সমস্যা সৃষ্টি হলে ওই অফিস ছেড়ে দেই। সেই থেকে তারা বেতনের টাকা দাবি করে। আমি তাদের বলি, আমার চ্যানেল অনুমোদন হয়নি এবং আমি তোমাদের চাকরি দেইনি। তাই বেতন দেয়ার প্রশ্নই উঠে না। এতে তারা ক্ষিপ্ত হয়ে আমাকে ফাঁদে ফেলার জন্য প্রতারণার অভিযোগ তুলে মিথ্যা অজুহাতে কোতোয়ালি থানায় অভিযোগ দায়ের করে।

পুলিশ দিয়ে হয়রানিসহ বিভিন্ন পত্রিকায় মিথ্যা-ভিত্তিহীন, বানোয়াট সংবাদ পরিবেশন করে সমাজে হেয় করার অপচেষ্টা চালায়। আমি ওই মিথ্যা সংবাদগুলোর তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জাকিয়ার মা সাহারা বানু ও শিশুকন্যা এতমিনান। এদিকে বিকালে একটি হোটেল মিলনায়তনে তানভীর আহমেদ শুভ এক সংবাদ সম্মেলন করে বলেন, আমরা প্রতারণার শিকার হয়েছি। জাকিয়া জাহান আমাদের চাকরি দেয়ার নাম করে টাকা নিয়েছে। এমজমিন