মেইন ম্যেনু

আরো সস্তা হচ্ছে বিমানের টিকিট

আরো সস্তা করা হচ্ছে বিমানের ভাড়া। বিমানে যাতায়াতকে মধ্যবিত্তের হাতের নাগালে আনতে ও বিমানে যাত্রীবান্ধব পরিবেশ তৈরি করতে বিমাননীতিকে সহজ করার যে প্রস্তাব দেয়া হয়েছিল, তাতে অনুমোদন দিল ভারতের কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা।

বুধবার সকালে দীর্ঘ প্রতীক্ষিত নয়া অসামরিক বিমান পরিবহণ নীতিতে সাক্ষর করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা। নতুন বিমান নীতিতে ছোট দুই শহরে যাতায়াতে, অর্থাত্‍‌ এক ঘণ্টার অন্তর্দেশীয় বিমানযাত্রায় সর্বাধিক ভাড়া ২,৫০০ টাকা করার কথা বলা হয়েছে। এক্ষেত্রে বিমানসংস্থাগুলির যে লোকসান হবে, তার ৮০% কেন্দ্রীয় সরকার তাদের ফিরিয়ে দেবে। ছোট ছোট শহরগুলিকে আরো বেশি করে বিমান সংযোগ বাড়ানোর প্রস্তাবও করা হয়েছে এই নীতিতে।

কেন্দ্রের আশা, ২০২২ সালের মধ্যে প্রতি বছর ৩০ কোটি অন্তর্দেশীয় বিমানের টিকিট বিক্রি হবে। আর ২০২৭ সালের মধ্যে সেই সংখ্যাটা বেড়ে হবে ৫০ কোটি। আন্তর্জাতিক সফরের ক্ষেত্রে টার্গেট ২০২৭ সালের মধ্যে প্রতি বছর টিকিট বিক্রি হবে ২০ কোটি।

২০১৪ সালে প্রথম এই নয়া বিমান নীতির খসড়া প্রকাশ্যে আনে NDA সরকার। ২০১৫ সালের অক্টোবর মাসে তা বদলে সেই জায়গায় আনা হয় নয়া খসড়া। ১৮ মাস ধরে মন্ত্রনালয়ের বিভিন্ন পর্যালোচনার পর এই নীতিতে সাক্ষর করা হলো। সামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রনালয় প্রস্তাবিত এই নীতি কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার অনুমোদনের জন্য পাঠায় ৩ জুন।-টাইমস অফ ইন্ডিয়া