মেইন ম্যেনু

আরো ১২ কাজ করা যায় জি-মেইলে

বিশ্বের অন্যতম শক্তিশালী ও সুবিধাসম্পন্ন ইমেইল ব্যবস্থা জিমেইল। গুগলের এই প্রযুক্তিতে বিশেষভাবে ইমেইল পাঠানোসহ নানা সুবিধা আছে যা অনেকেরই অজানা। এসব সুবিধার কোনোটি সরাসরি জিমেইল সেটিং পরিবর্তন করেই পাওয়া যায়। আবার কোনো কোনো ক্ষেত্রে এক্সটেনশন (গুগলের ব্রাউজার ক্রোম বা জিমেইলের জন্য তৈরি ছোট সফটওয়্যার) যুক্ত করে নিতে হয়। সিএনএনের প্রতিবেদন অনুযায়ী, জিমেইলে আরো ১২টি বিশেষ সুবিধা রয়েছে, যার কথা অনেকেই জানেন না।


প্রিশিডিউল মেসেজেস (Preschedule messages)

ইমেইল লিখে আগে থেকেই ঠিক করে রাখা কখন কোথায় ইমেইলটি পাঠানো হবে—এই সুবিধাই হলো ‘প্রিশিডিউল মেসেজেস’। এই সুবিধার জন্য ‘রাইট ইনবক্স’ বা ‘বুমেরাং’ নামের এক্সটেনশন গুগল ক্রোমে যুক্ত করে নিতে হবে। সাধারণত মাসে ১০টি পর্যন্ত প্রিশিডিউল মেসেজেস সুবিধা বিনামূল্যেই পাওয়া যায়। তবে সীমাহীন এই সুবিধা পেতে মাসে সর্বনিম্ন পাঁচ মার্কিন ডলার খরচ করতে হয়। আর ‘গুগুলের শিটে’ পরিবর্তন এনে এই সুবিধা বিনামূল্যেই করে নেওয়া সম্ভব।


স্নুজ মেইলস (Snooze emails) 

নির্দিষ্ট সময় পরে একটি মেইল দেখা প্রয়োজন। এ ক্ষেত্রে ব্যবহার করতে পারেন ‘স্নুজ মেইলস’। ইনবক্সের কোনো মেইলে সময় ঠিক করে দিতে হবে। নির্দিষ্ট সময় পর ওই মেইলি ইনবক্সে সবার ওপরে দেখা যায়। তাই দৃষ্টি এড়িয়ে যাওয়ার উপায় নেই।‘স্নুজ মেইলস’ সুবিধা পেতে ‘জিমেইল স্নুজ’ নামে একটি এক্সটেনশন গুগল ক্রোমে যোগ করতে হবে।


সেন্ড স্টক রেসপন্স (Send stock responses)

একই মেইল বার বার পাঠানোর কাজকে সহজ করে ‘সেন্ড স্টক রেসপন্স’ সুবিধা। এই ক্ষেত্রে একটি মেইল লিখে সংরক্ষণ করে পরবর্তীতে শুধু ঠিকানা পরিবর্তন করে দিলেই হলো। জিমেইলের ল্যাব অপশনে গিয়ে কিছু পরিবর্তন করে এই সুবধা পাওয়া যায়। এই সুবিধা নেওয়ার পুরো পক্রিয়া সচিত্র পেতে ক্লিক করুন


ইমেইল পড়া হয়েছে কি না জানুন 

ইমেইল পাঠানোর পর মাঝেমধ্যেই দেখা যায় প্রাপক তা পায়নি বা পড়েনি। কারো কাছে পাঠানো ইমেইল পড়া হয়েছি কি না এই তথ্য জানারও সুবিধা আছে জিমেইলে। গুগল ক্রমে ‘ব্যানানাট্যাগ ইমেইল ট্র্যাকিং’, ‘সাইডকিক’ বা ‘ইন্টেললাইভার্স’ যুক্ত করে এই সেবা  চালু করা যায়। এই এক্সটেনশনগুলো ব্যবহার করে জানা যায় কোথায়, কখন এবং কোন যন্ত্রে ইমেইলটি খোলা হয়েছে।


আত্মঘাতী মেইল 

কিছুদিন আগেই জিমেইল চালু করেছে আত্মঘাতী মেইল সেবা। ডিমেইল নামক এই সেবা চালু করে ইমেইলে নির্দিষ্ট সময় ঠিক করে দেওয়া যায়। ইমেইলটি খোলার নির্দিষ্ট সময় পর এটি মুছে যায়। এই সুবিধার জন্য গুগল ক্রোমে নির্দিষ্ট এক্সটেনশন যুক্ত করতে হয়। এ ছাড়া বেশ কিছু দিন ধরেই ইমেইল পাঠানোর পরও তা বাতিল করার সুবিধা যুক্ত করেছে গুগল। তবে মেইল পাঠানোর পর নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত বাতিল করার সুবিধা কাজ করে।


কাজের তালিকা তৈরি 

ইমেইল দিয়ে কাজের তালিকা তৈরির সুবিধা আছে জিমেইলে। রিমেমবার দ্য মিল্ক নামক একটি এক্সটেনশন গুগল ক্রোম বা ফায়ারবক্স ব্রাউজারে যুক্ত করে এই সুবিধা চালু করা যায়। পরে জিমেইল চালু করে কোনো মেইলকে কাজের তালিকায় যোগ এবং এর সঙ্গে ক্যালেন্ডার ও ঠিকানা যুক্ত করা যায়।


সুবিধা সাজিয়ে নেওয়া 

জিমেইল ল্যাবের একটি ফিচারের মাধ্যমে গুগল ক্যালেন্ডারকে ইনবক্সের কাছে টেনে আনা যায়। এর ফলে কাজের তালিকা ও সময় সূচি করতে সুবিধা হয়।


একই সঙ্গে কয়েকটি অ্যাকাউন্ট 

জিমেইল ল্যাবের মাধ্যমে কয়েকটি ইমেইল অ্যাকাউন্ট একই সময় খুলে রাখা যায়। এর ফলে নিজের কয়েকটি অ্যাকাউন্টের মেইল সহজেই পড়া যায়।


ইন্টারনেট ছাড়াও কাজ 

জিমেইল অফলাইন অ্যাপ ব্যবহার করে ইন্টারনেট সংযোগ না থাকা অবস্থায়ই মেইল সুবিধা পাওয়া যাবে। ইন্টারনেট সংযোগ পাওয়ার পর পরই এটি জিমেইলের কোনো পরিবর্তন কার্যকর হবে।

১০
দ্রুত যোগাযোগ 

ব্রাউজার না খুলেও নতুন আসা ইমেইল দেখার সুবিধা দেয় জিমেইল। এজন্য ‘চেকার প্লাস’ নামে একটি অ্যাপ চালু করতে হবে। অ্যাপটি চালু থাকলে কোনো নতুন মেইল এলে তা জানান দেবে। আবার চাইলে মেইলের উত্তরও পাঠানো যাবে। এর ফলে ইমেইল যোগাযোগ দ্রুত হয়।

১১
বেছে নেওয়ার সেবা 

বার বার ইনবক্স দেখে কোনো নির্দিষ্ট ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠানের মেইল খোঁজার বদলে এমন যদি হয় শুধু ওই নির্দিষ্ট মেইল এলেই ফোন করে বা বার্তার মাধ্যমে জানিয়ে দেবে। অ্যাওয়েফাইড নামক একটি অ্যাপ কিনে ব্যবহার করলে জিমেইলে এই সুবিধা পাওয়া যায়। কোনো নির্দিষ্ট মেইল এলে তা ফোনে বা বার্তার মাধ্যমে ব্যবহারকারীকে জানিয়ে দেয়।

১২
বিভিন্ন সুবিধা একসঙ্গে 

ইমেইলে সব সুযোগ-সুবিধা একসঙ্গে আনার চেষ্টা করছে গুগল। গুগলের সর্বাধুনিক ব্যবস্থায় টাস্ক, স্নুজ সুবিধা, ঠিকনার তালিকাসহ অনেক কিছুই ইনবক্সেই পাওয়া যায়। আর ডেস্কটপ বা মোবাইল সব প্লাটফর্মেই এসব সুবিধা কাজ করে।