মেইন ম্যেনু

আলীকে শেষ শ্রদ্ধা জানাবেন ক্লিনটন

কিংবদন্তি বক্সার মোহাম্মদ আলীর মৃত্যুতে সারা বিশ্ব শোকাহত। যুক্তরাষ্ট্রের কেন্টাকি অঙ্গরাজ্যের লুইসভিল আলীর জন্মস্থান। আগামী শুক্রবার সেখানেই দাফন হবে ‘দ্য গ্রেটেস্ট’-এর। আলীকে শেষবারের মতো শ্রদ্ধা জানিয়ে বক্তব্য রাখতে পারেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিনটন। আলীর পারিবারিক মুখপাত্র বব গানেল জানিয়েছেন এ তথ্য।

বৃহস্পতিবার পারিবারিকভাবে জানাজা হবে মোহাম্মদ আলীর। পরদিন শেষ শ্রদ্ধা জানানোর জন্য এই মহান বক্সারের মরদেহ রাখা হবে লুইসভিলের কেন্দ্রস্থলে। সেখানে ক্লিনটন ছাড়াও বক্তব্য রাখতে পারেন বিখ্যাত কৌতুকাভিনেতা বিলি ক্রিস্টাল ও বিশিষ্ট ক্রীড়া সাংবাদিক ব্রায়ান্ট গাম্বেল। শেষকৃত্যের আগে মরদেহ নিয়ে শহর প্রদক্ষিণের পরিকল্পনাও করা হয়েছে। সবশেষে দাফন হবে কেভহিল কবরস্থানে।

আলীকে শ্রদ্ধা জানিয়ে লুইসভিলের সব পতাকা এখন অর্ধনমিত। তিনবারের বিশ্ব হেভিওয়েট চ্যাম্পিয়নের ছোটবেলার বাসস্থানে নির্মাণ করা হয়েছে জাদুঘর। সেই জাদুঘরের বাইরে উপচে পড়ছে ভক্তদের ভালোবাসার ফুল, শ্রদ্ধাভরা কার্ড। হলিউডের ওয়াক অব ফেমে আলীর নামাঙ্কিত তারকার পাশেও ফুল দিয়ে যাচ্ছে বহু মানুষ।

দীর্ঘদিন ধরে পার্কিনসন্স রোগে ভুগছিলেন মোহাম্মদ আলী। পাশাপাশি শ্বাস-প্রশ্বাস জটিলতাও ছিল। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, সংক্রমণ জটিলতাই তাঁর মৃত্যুর কারণ। তবে বিখ্যাত ক্রীড়া সাময়িকী স্পোর্টস ইলাস্ট্রেটেড ও বিবিসির বিচারে বিংশ শতাব্দীর সেরা ক্রীড়াবিদ ও সেরা ক্রীড়া ব্যক্তিত্ব নাকি শেষ সময়টা শান্তিতেই কাটিয়েছেন। অন্তত বব গানেলের তেমনই দাবি, ‘জীবনের শেষ সময়ে পরিবারের কাছের মানুষকে পেয়েছেন তিনি। তেমন কোনো কষ্টও পাননি।’