মেইন ম্যেনু

আশুলিয়ায় গৃহবধুর ঝুলন্ত মৃদেহ উদ্ধার-স্বামী আটক

টিপু সুলতান (রবিন), সাভার থেকে: সাভারের আশুলিয়ার ঘুঘুদিয়া এলাকায় একগৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। এঘটনায় মেয়েকে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন নিহতের বাবা রতন ঘোষ। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলেই মৃত্যুর কারণ জানা যাবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

বুধবার দুপুরে আশুলিয়ার ঘুঘুদিয়া এলাকায় স্বর্ণালংকারের কারিগর তপন ঘোষের স্ত্রী পিংকি রানী ঘোষ নিজ কক্ষে গলায় ফাঁসি দিয়ে আত্নহত্যা করেছে এমন খবরের ভিত্তিতে ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে আশুলিয়া থানা পুলিশ।

এদিকে খবর পেয়ে পিংকির বাবা রতন ঘোষ আশুলিয়া থানায় এসে সংবাদকর্মিদের জানান আত্নহত্যা নয় বরং তাকে হত্যা করেছে তার স্বামী।

এসময় পিংকির স্বামী তপন ঘোষের সাথে অন্য নারীর সাথে সম্পর্ক থাকার কারণে তাদের মধ্যে মাঝে মাঝেই পারিবারিক কলহ হতো বলে জানান রতন ঘোষ।

এঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পিংকির স্বামী তপন ঘোষকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহতের মরদেহ ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে বলে জানিয়েছে আশুলিয়া থানার উপপরিদর্শক একরামুল হক।

তপন ঘোষ(৩০)ঘুঘুদিয়া এলাকার মরণ ঘোষের ছেলে।

এঘটনায় থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।