মেইন ম্যেনু

আ.লীগের কেউ যাননি বিএনপির কাউন্সিলে

বিএনপির কাউন্সিলের আমন্ত্রণপত্র পেলেও ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ বা জোটের কেউই কাউন্সিলে যোগ দেননি। তবে ২০ দলীয় জোটের বাইরে থাকা বিকল্পধারা বাংলাদেশের চেয়ারম্যান এবং বিএনপির প্রতিষ্ঠাকালীন মহাসচিব ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী কাউন্সিলে উপস্থিত হয়েছেন।

ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে শনিবার সকাল ১০টা থেকে চলছে বিএনপির ষষ্ঠ কাউন্সিল।

বিএনপির পঞ্চম কাউন্সিলে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতা অসীম কুমার উকিলের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল উপস্থিত হয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছিল। কিন্তু তত্ত্বাবধায়ক সরকার ইস্যুতে দুদলের দীর্ঘদিনের বিপরীতমুখি অবস্থানের পর বিএনপির এবারের কাউন্সিলে আওয়ামী লীগের কেউ উপস্থিত থাকলেন না।

বিএনপির সম্মেলনে প্রতিনিধি দল না পাঠানোর পক্ষে যুক্তি তুলে ধরে আওয়ামী লীগের নীতি-নির্ধারণী পর্যায়ের নেতারা বলছেন, যে দলটি ক্ষমতার লোভে দেশজুড়ে নাশকতা চালিয়ে শত শত মানুষ হত্যা করেছে তাদের সঙ্গে কোনো ধরনের সমঝোতা হতে পারে না।

আশুলিয়ায় ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি আগুন সন্ত্রাসের রাজনীতি করে বলেই তাদের কাউন্সিলে এবার কোনো প্রতিনিধি না পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

দলের নীতি-নির্ধারণী পর্যায়ের নেতারা জানান, গত সম্মেলনে বিএনপিকে রাজনৈতিক দল হিসেবে মনে করে তাদের সম্মেলনে প্রতিনিধি দল পাঠিয়েছিল আওয়ামী লীগ। এবার বিএনপিকে রাজনৈতিক সংগঠন নয়, সন্ত্রাসী দল হিসেবে দেখছেন ক্ষমতাসীনরা। তাই বিএনপির সম্মেলনে আওয়ামী লীগের পক্ষের কোনো প্রতিনিধি পাঠাবে না বলে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

গত বুধবার বিএনপির একটি প্রতিনিধি দল ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে গিয়ে সভানেত্রী শেখ হাসিনা ও সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলামকে চিঠি দিয়ে কাউন্সিলে আসার জন্য আমন্ত্রণ জানায়।