মেইন ম্যেনু

ইংল্যান্ডের প্রতিনিধিদল ‘সন্তুষ্ট’

বাংলাদেশের নিরাপত্তা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে গতকাল বুধবার ঢাকায় এসেছে ইংল্যান্ডের নিরাপত্তা সংক্রান্ত প্রতিনিধিদল। তিন সদস্যের এই দল বৃহস্পতিবার মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়াম পরিদর্শনে যায়। নিরাপত্তার বিষয়ে কোনো মন্তব্য না করলেও বাংলাদেশ সরকার ও বিসিবির সহযোগিতা পেয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছে তারা।

প্রতিনিধিদলে আছেন ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি) নিরাপত্তা পরামর্শক রেজ ডিকসন, ইসিবির ডিরেক্টর অব ক্রিকেট অপারেশনস জন কার এবং পিসিএর প্রধান নির্বাহী ডেভিড লেদারডেল। তাঁদের প্রতিবেদনের ওপর অনেকাংশেই নির্ভর করবে ইংল্যান্ড ক্রিকেট দল বাংলাদেশ সফরে আসবে কি না।

আজ বৃহস্পতিবার মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে ইসিবি ডিরেক্টর জন কার সাংবাদিকদের বলেন, ‘নিয়মিত কাজের অংশ হিসেবেই এই সফরে এসেছি আমরা। মূলত এখানে আমরা খেলোয়াড়দের থাকার হোটেল, মাঠ ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা খতিয়ে দেখব। আমরা বাংলাদেশ সরকার ও বিসিবির সহেযোগিতায় খুবই সন্তুষ্ট।’

ইংল্যান্ডের বাংলাদেশ সফরের সম্ভাবনা নিয়ে ইসিবির এই কর্মকর্তা বলেন, ‘মূলত ইংল্যান্ডে ফিরে গিয়েই আমরা এই সফরের প্রতিবেদটি জমা দেব। আমাদের দায়িত্ব এটুকুই। এর বেশি কিছু আমরা বলতে চাই না।’

এর আগে বেশ কিছু সফল ইভেন্ট আয়োজন করেছে বাংলাদেশ। এই সম্পর্কে জন কার বলেন, ‘বাংলাদেশে এর আগে আইসিসির বেশ কয়েকটি বড় ইভেন্ট আয়োজন করা হয়েছে। বিষয়টি আমরা অবগত।’

দুটি টেস্ট ও তিনটি ওয়ানডে খেলতে আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ সফরে আসার কথা ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের। এই সিরিজ দিয়েই দীর্ঘ ছয় মাস বিরতির পর আবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরবে বাংলাদেশ। কিন্তু নিরাপত্তা সংক্রান্ত জটিলতায় সিরিজটি আদৌ হবে কি না, তা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়।