মেইন ম্যেনু

ইউএনও লাঞ্ছিত: মামলা দায়ের, আটক ৩

ফেনীর পরশুরামের ইউএনও এইচএম রকিব হায়দারের ওপর হামলা ঘটনায় জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ৩ জনকে আটক করেছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় পরশুরাম থেকে তাদের আটক করা হয়।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বিকেলে ইউএনও এইচএম রকিব হায়দারের গাড়িচালক আবুল কাশেম বাদী হয়ে পরশুরাম থানায় মামলা করেন। এতে ৭ জনের নাম উল্লেখসহ ১২ জনকে আসামি করা হয়। মামলার পর ৩ জনকে আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলেন- পরশুরাম পৌরসভার কাউন্সিলর শ্রমিক লীগ নেতা আবদুল মান্নান, যুবলীগ নেতা পারভেজ ও রাশেদুল হাসান রাসু।

এর আগে শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নৌমন্ত্রী শাজাহান খান পরশুরাম বিলোনিয়া স্থলবন্দর পরিদর্শনে যাওয়ার সময় পথিমধ্যে আওয়ামী লীগ নেতা খায়রুল বাশার তপনের প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল কিন্ডারগার্টেনে নামানোর চেষ্টা করেন।

এতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এইচএম রকিব হায়দার তাতে বাধা দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি খায়রুল বাশার তপন ও সহযোগীরা প্রকাশ্যে ইউএনওকে কিল-ঘুষি মারেন।

পুলিশ তাকে উদ্ধার করে পরশুরাম স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ফেনী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। পরশুরাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক হাবিব জানান, আহত উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাথায় প্রচণ্ড আঘাত পেয়েছেন।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ জানান, ইউএনওকে লাঞ্ছিত করার ঘটনায় ৩ জনকে আটক করা হয়েছে।