মেইন ম্যেনু

ঈদের ছুটিতে মাশরাফি-সাকিবরা কে কি করবেন?

ওয়ালটন ১৭তম জাতীয় ক্রিকেট লিগের (এনসিএল) প্রথম পর্বের খেলা গত সোমবার শেষ হয়েছে। বৃষ্টিতে এনসিএলের প্রথম পর্বের শেষ দুই দিনের খেলা ঠিকমতো মাঠে গড়াতে পারেনি। আক্ষরিক অর্থে ওই দিন থেকে ঈদের ছুটি কাটাতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন সাকিব-মুশফিকরা।

গেল ঈদের সময় অবশ্য পরিবার-পরিজনের সঙ্গে ঈদ করার সুযোগ মেলেনি জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা। কারণ, তখন দক্ষিণ আফ্রিকা বিপক্ষে সিরিজ চলছিল। তবে এবারো ১৫জন ক্রিকেটার পরিবার-পরিজনের সঙ্গে ঈদ করার সুযোগ পাচ্ছেন না। কারণ মুমিনুল-নাসিররা বাংলাদেশ ‘এ’দলের হয়ে ভারত সফরে রয়েছেন।

মঙ্গলবার থেকে শুরু হয়েছে ক্রিকেটারদের ঈদের ছুটি। আর তা শেষ হবে আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর। তার একদিন পরে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে বাংলাদেশে আসবে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল। ক্রিকেটারদের ছুটির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) মিডিয়া ম্যানেজার রাবিদ ইমাম।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের জন্য জাতীয় দলের অনুশীলন ক্যাম্প শুরু হবে আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর। ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে প্রায় এক সপ্তাহের ছুটি দেয়া হয়েছে মুশফিক-তামিমদের। ২৮ সেপ্টেম্বর মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে শুরু হবে ক্রিকেটারদের অনুশীলন। বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে ছুটিতে থাকায় দলের ফিজিওর কাছে রিপোর্ট করতে বলা হয়েছে।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর দশ দিনের ছুটি নিয়ে অস্ট্রেলিয়ায় পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে গেছেন জাতীয় দলের প্রধান কোচ হাথুরুসিংহে। প্রধান কোচকে ছাড়াই মুশফিকুর রহিমদের অনুশীলন ক্যাম্প শুরু হয়ে যাবে। যদিও ততদিনে ছুটি কাটিয়ে ঢাকায় ফেরার কথা রয়েছে জাতীয় দলের প্রধান কোচের। তবে অস্ট্রেলিয়া বধের মূল প্রস্তুতি শুরু হবে প্রধান কোচের তত্ত্বাবধায়নে।

বাংলাদেশ দলের অনুশীলন ক্যাম্প শুরুর দিনই ঢাকায় পা রাখবে স্টিভেন স্মিথের অস্ট্রেলিয়া। নতুন টেস্ট অধিনায়ক স্মিথের নেতৃত্বে বাংলাদেশ সফরে আসবে অজিরা। ঢাকায় পৌঁছে মিরপুরে টানা চারদিন অনুশীলন শেষে আগামী ৩ অক্টোবর থেকে বিসিবি একাদশের বিপক্ষে ফতুল্লায় একটি তিনদিনের প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে সফরকারীরা।

এরপর শুরু হবে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। আগামী ৯ অক্টোবর চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শুরু হবে প্রথম টেস্ট ম্যাচ। আর ১৭ অক্টোবর দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হবে দল দুটি।