মেইন ম্যেনু

এই ঈদে দুই বাংলা মাতাবেন মাহি

সর্বশেষ সাংবাদিক হয়ে দর্শকের সামনে এসেছিলেন হালের জনপ্রিয় নায়িকা মাহিয়া মাহি। এবার তিনি কলকাতার নায়ক ওমের সাথে জুটি বেঁধে দর্শককের সামনে হাজির হবেন ‘অগ্নি-টু’ চলচ্চিত্রে।

জাজ মাল্টিমিডিয়া ও কলকাতার এসকে মুভিজের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ছবিটি পরিচালনা করেছেন বাংলাদেশের ইফতেখার চৌধুরী এবং ভারতের হিমাংশু। আসছে ঈদে দুই বাংলায় একযোগে মুক্তি পাচ্ছে মাহির নতুন এই ছবি। সিনেমাটি নিয়ে তার প্রত্যাশার কথা জানাচ্ছেন অজেয় চৌধুরী।

নাটক, সিনেমা, গান—বাংলাদেশের সব অঙ্গনের সব রেকর্ড ভেঙে দিল মাহিয়া মাহির নতুন চলচ্চিত্র ‘অগ্নি-টু’। আসছে ঈদে মুক্তি প্রতীক্ষিত এই ছবির ‘ম্যাজিক মামণি’ শিরোনামের একটি আইটেম গান ইউটিউবে প্রদর্শন শুরু হয় গত ৪ জুন থেকে। প্রথম দিনেই ইউটিউবে রীতিমতো হুলস্থূল ফেলে এবং রাতারাতি আলোচনায় চলে আসে। ইউটিউবে প্রচারের শুরু থেকেই একের পর এক রেকর্ড করে আসছে গানটি। জানা গেছে, প্রচারের প্রথম ৬ দিনে ৪ লাখ ৬১ হাজার ৪৮০ বার দেখা হয়। যা বাংলাদেশের ইতিহাসে এবারই প্রথম।

এদিকে মুক্তির আগে গানটির অভাবনীয় দর্শকসাড়া দেখে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন গানটির পারফর্মার মাহিয়া মাহি। নিজের অনুভূতি প্রকাশ করে মাহি বলেন, ‘একইসঙ্গে আমি অভিভূত এবং গর্বিতও বটে। একটা গান এতটা দর্শক জয় করবে—ভাবিনি কখনো। এজন্য দর্শক এবং আমার ভক্তদের কাছে কৃতজ্ঞচিত্তে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’ ‘ম্যাজিক মামণি’ গানটি লিখেছেন কলকাতার গীতিকার রিদ্দি, সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন স্যাভি এবং কণ্ঠ দিয়েছেন নেহা কাক্কার।

‘অগ্নি-টু’ সিনেমাটি আগামী ঈদের দিন থেকে দুই বাংলায় একযোগে মুক্তি পাচ্ছে। আগামী ২০ জুন সিনেমাটি সেন্সরবোর্ডে জমা দেওয়া হয়েছে। জাজ মাল্টিমিডিয়া ও কলকাতার এসকে মুভিজের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত এই ছবিতে বাংলাদেশের মাহি ও কলকাতার ওম প্রধান দুটি চরিত্রে জুটি বেঁধে অভিনয় করেছেন। ‘অগ্নি’র মতো ‘অগ্নি-টু’তেও ভিন্নধারার অ্যাকশন লুকে দেখা যাবে মাহিকে। এই সিনেমার মাধ্যমে নিজেকে আরও একধাপ এগিয়ে নিয়ে যাবেন—এমনটাই প্রত্যাশা মাহির। সিনেমার জন্য অনেক কিছু কষ্ট এবং ত্যাগ স্বীকার করতে হয়েছে মাহিকে।

অতীতের সব রেকর্ড ভেঙে দিয়ে আরেকটি ইতিহাস করবে। আর আমিও হয়তো নিজেকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে যাব।’ ‘অগ্নি ২’ সিনেমাটির আরও একটি চমক হলো ঈদে মুক্তির পর পরই বিশ্বের আরও ৮টি দেশে প্রদর্শিত হবে সিনেমাটি। জাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার আব্দুল আজিজ বলেন, ঈদের পর আগামী ১৪ আগস্ট থেকে ভারত, চীন (চায়না ভাষায়), হংকং, মালয়েশিয়া (মালয় ভাষায়), ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, ইটালি ও আমেরিকাতে প্রদর্শিত হবে সিনেমাটি। এ দেশগুলোতে প্রদর্শনের সময় প্রচার-প্রচারণার জন্য সেখানে উপস্থিত থাকবেন সিনেমার প্রধান পাত্র-পাত্রী এবং সিনেমার পরিচালক ইফতেখার চৌধুরী।