মেইন ম্যেনু

একদিনে পাঁচ মহাদেশ ভ্রমণ করলেন যে যুবক!

আপনি ভ্রমণ বিলাসী। কিন্তু হাজার ইচ্ছে থাকলেও কোথাও বেড়াতে যাওয়া আপনার সম্ভব হচ্ছে না। সাধারণত এমন পরিস্থিতির সম্মুখীন মানুষ কখন হন? এক, যখন সাধ আর সাধ্যের মধ্যে মিলন ঘটানো প্রায় অসম্ভব হয়ে দাঁড়ায়। অথবা সাধ আর সাধ্য থাকলেও হাতে সময়ের বড়ই অভাব। এই দুই ধরনের মানুষ দেখেই আমরা অভ্যস্ত। কিন্তু আমাদের কত কিছুই তো অজানা থেকে গেছে। ঠিক যেমন আমরা জানি না গুন্নার গারফোরের সম্পর্কে।

নরওয়েজিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশনের মিডিয়া কনসালট্যান্ট গুন্নার গারফোর-এর ক্ষেত্রে ব্যাপারটা একটু আলাদা। ইনি ভূপর্যটক। পৃথিবীতে মোট ১৯৮টি দেশ আছে। ছোট থেকেই গুন্নার স্বপ্ন দেখতেন পৃথিবীর সব দেশ ঘুরে দেখার। কিন্তু সেই ইচ্ছে যে এত তাড়াতাড়ি সফল হয়ে যাবে তা বোধহয় তিনি স্বপ্নেও ভাবেননি। ৪০ বছরের জন্মদিন পালন করার আগেই পৃথিবীর সব দেশে ঘুরে দেখা হয়ে গেছে গুন্নার গারফোর-এর। আরও নির্দিষ্ট করে বলতে হলে ২০১৩ সালে ৩৭ বছর বয়সেই ১৯৮ টি দেশ ঘোরা শেষ তার।

এই বছরের শুরুর দিকে গুন্নার একদিনে পাঁচটি মহাদেশ ঘুরে দেখেছেন। তার আর এক বন্ধু আদ্রিয়ান বাটারওয়ার্থ-এর সঙ্গে তিনি একদিনে পা রেখেছেন এশিয়া, ইউরোপ, আফ্রিকা, উত্তর আমেরিকা এবং দক্ষিণ আমেরিকা-য়। ভাবতেই পারেন এটা কী করে সম্ভব হল! এই পাঁচটি দেশের মধ্যে যাওয়া আসা করতে তাদের সময় লেগেছিল। ২৮ ঘণ্টা ২৫ মিনিট। কিন্তু যেহেতু প্রতিটি মহাদেশের টাইম জোন আলাদা, তাই ক্যালেন্ডার অনুযায়ী একই দিনে তারা এই পাঁচটি মহাদেশ যেতে পেরেছিলেন।