মেইন ম্যেনু

এখনো ‘না’ পাকিস্তানের, লিখিত প্রতিশ্রুতি দাবি

ভারতে যাওয়ার অনুমতি পায়নি পাকিস্তান দল। গতকাল বৃহস্পতিবারই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নিতে ভারত পৌঁছানোর কথা ছিল পাকিস্তানের। কিন্তু গতকাল সন্ধ্যায় পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে জানানো হয়, ভারতে যাওয়ার অনুমতি পাননি আফ্রিদিরা।

ভারতের সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী চৌধুরী নিসার আলী খান আবারো ক্রিকেট দলের নিরাপত্তার বিষয়টি সামনে নিয়ে এসেছেন। ভারত সরকারের কাছ থেকে পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের ‘পূর্ণ নিরাপত্তা’ নিশ্চিত করার গ্যারান্টি চেয়েছেন নিসার আলী। এ ব্যাপারে ভারত সরকারের লিখিত প্রতিশ্রুতি চেয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

নিসার আলী বলেন, ‘খেলার জন্য পাকিস্তান ভারতে আসতে চায়। কিন্তু হুমকি দেওয়া হচ্ছে সরাসরি পাকিস্তানকে। যখন আমাদের ক্রিকেটাররা খেলবে, তখন তাঁদের যেন কোনো চাপে পড়তে না হয়, তা দেখার দায়িত্ব আমাদের। ভারত সরকারের কাছ থেকে নিরাপত্তার ব্যাপারে লিখিত নিশ্চয়তা না পাওয়া পর্যন্ত আমরা আমাদের দলকে ভারতে যেতে দিতে পারি না।’

বিশ্বকাপে আগামী ১৬ মার্চ কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে বাছাই পর্ব পেরোনো দলের সঙ্গে নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলবে পাকিস্তান। ওই গ্রুপেই আছে ভারত, যাদের সঙ্গে ১৯ মার্চ ধর্মশালায় খেলার কথা পাকিস্তানের। কিন্তু নিরাপত্তার ঝুঁকি থাকায় ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে কলকাতার ইডেনে।

তবে ধর্মশালার পর ইডেন গার্ডেন্সের পিচও খুঁড়ে ফেলার হুমকি দিয়েছে অ্যান্টি-টেরোরিস্ট ফ্রন্ট অব ইন্ডিয়া (আইটিএফআই)। ওই সংগঠনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, পাকিস্তান ক্রিকেট দল ভারতের যেখানেই খেলতে নামবে, সেখানেই বাধা দেবে তারা।

২০০৭ সালে প্রথম টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু হয়। প্রথম বিশ্বকাপেই ফাইনাল খেলে ভারত ও পাকিস্তান। পাকিস্তানকে ৫ রানে হারিয়ে শিরোপা জিতে নেয় ভারত। ২০০৯ সালে অনুষ্ঠিত পরবর্তী আসরেই শিরোপা জিতে নেয় পাকিস্তান।