মেইন ম্যেনু

এটা কুমির নাকি দানব?

আকৃতি দেখলে মনে হবে, এটি আসলেই একটি দানব! ১৫ ফিট দীর্ঘ এমন দানবাকৃতির এলিগেটর এর আগে কেউ দেখেছে বলে মনে হয় না। গুলি করে হত্যা করা হয়েছে এলিগেটরটিকে। যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডায় কৃষকদের গবাদিপশু হত্যা করতে এসেছে- এমন সন্দেহের ভিত্তিতে এটিকে গুলি করে স্থানীয় এলিগেটর শিকারি লি লাইটসে।

এলিগেটর শিকারের একটি প্রতিষ্ঠানের প্রধান লি। মঙ্গলবার গবাদিপশু গোসল করানোর একটি পুকুরে ৩৮০ কেজি ওজনের ওই এলিগেটরটি খুঁজে পান তিনি। লি বলেন, ‘এটা অনেকদিন ধরেই আমাদের খামারের পশু ভক্ষণ করে আসছিল। কারণ পানিতে অনেক গবাদিপশুর শরীরের বিভিন্ন অংশ পাওয়া গেছে। এটা ছিল আসলে একটা দানব, যা হত্যা করা দরকার ছিল।’

১৯৮৮ সাল থেকে বাণিজ্যিক ভিত্তিতে এলিগেটর শিকার করে আসছেন লাইটসে। এ পর্যন্ত পাঁচ হাজার এলিগেটর শিকার করেছেন তিনি। তবে এর কোনোটিই ৬ ফিটের চেয়ে বড় নয়।

2016_04_06_16_57_09_hoAR5Gj9sRt28Ss55g69lhwB0ciYFe_original

উল্লেখ্য, এলিগেটর কুমিরের মতো এক ধরনের সরিসৃপ প্রাণি। অনেকে একে কুমির ভেবে ভুলও করে থাকেন। তবে এলিগেটর আর কুমিরের মধ্যে পার্থক্য অনেক। এলিগেটর ও কুমির এই দুটিই Crocodylia বর্গের অন্তর্ভুক্ত হলেও এলিগেটর হচ্ছে Alligatoridae গোত্রের এবং কুমির হচ্ছে Crocodylidae গোত্রের অন্তর্ভুক্ত।

এলিগেটর সাধারণত মিঠা পানিতেই বেশি দেখা যায়। অল্প কিছু লোনা পানিতেও বাস করে। অন্যদিকে কুমির লোনা পানিতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে। তবে কিছু মিঠা পানির কুমিরও দেখতে পাওয়া যায়।