মেইন ম্যেনু

এবার ‘বদলি’ হজের সুযোগ নেই

প্রতি বছর পবিত্র হজের আগে মৃত্যু, অসুস্থতা ও অক্ষমতার কারণে নিবন্ধিত হজযাত্রীর পরিবর্তে ধর্ম মন্ত্রণালয় তার পরিবারের সদস্য ও পছন্দসই অন্য কাউকে ‘বদলি’ হজ করার অনুমতি দিলেও এবার সে সুযোগ দিচ্ছে না।

চলতি বছর অর্থাৎ ২০১৬ সালের হজ তালিকায় ২০টি এজেন্সির ৬৪ জন প্রাক নিবন্ধিত হজ গমনেচ্ছু মৃত্যু, অসুস্থতা ও অক্ষমতার কারণে হজে যেতে না পারার অপারগতা প্রকাশ করেছে।

ফলে প্রাক নিবন্ধিত হজযাত্রীদের (তিনি অনুমোদিত ৪৮৩ এজেন্সির যেটি থেকেই প্রাক নিবন্ধিত হউক না কেন) মধ্যে থেকে শূন্য ৬৪ হজ গমচ্ছেুর তালিকা সমন্বয় করতে হবে।

২ জুন সহকারী পরিচালক (হজ) মো. আবদুল মালেক স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে প্রাক নিবন্ধিত হজযাত্রীদের মধ্যে ক্রমিক নম্বর ৮৮ হাজার ২৩৭ থেকে ৮৮ হাজার ৩৩৬ পর্যন্ত যারা প্রাক নিবন্ধিত হয়েছেন, তাদের মধ্যে সরকারের সর্বনিম্ন প্যাকেজের টাকা ৩ লাখ ৪ হাজার ৯০৩ টাকা এবং যাদের পাসপোর্টের মেয়াদ ২০১৭ সালের ৩০ মার্চ পর্যন্ত বলবৎ আছে তাদের আজ (৬ জুন) এর মধ্যে অপেক্ষমাণ এজেন্সির মধ্যে যে কোন এজেন্সি হতে শূন্যস্থান পূরণ করতে হবে বলে জানানো হয়।

হজে যেতে অপারগ ৬৪ জনের মধ্যে ৩ জন মৃত্যু, ১ জন অপারগ, ১ জন বাতিল, ১ জন বিশেষ কারণ ও অন্যান্যরা অসুস্থতাজনিত কারণে যেতে পারছেন না।

যে ২০টি এজেন্সির যাত্রী অপারগতা প্রকাশ করেছে সে এজেন্সিগুলো হলো- বাংলাদেশ ওভারসিজ সার্ভিসেসের ১ জন, মেয়র হজ কাফেলা ট্রাভেলস অ্যান্ড ট্যুরসের ২ জন, প্রভাতী ট্রাভেল সার্ভিসেস ৫ জন, ইউনাইটেড মক্কা মদিনা ট্রাভেলস ১ জন, ইউনাইটেড স্টার ট্রাভেলস ৩ জন, ডুলাফকির এয়ার সার্ভিস ১০ জন, আল ইসহাক ট্রাভেলস ইন্টারন্যাশনাল ৩ জন, ইরানা এয়ার ইন্টারন্যাশনাল ১ জন, ঘলি কনসার্ন ১ জন, কাজী ইন্টারন্যাশনাল ট্রাভেলস ১ জন, খাদিজা এয়ার ট্রাভেলস ১ জন, লাব্বায়িক ওভারসিজ লিমিটেড ৫ জন, মুজদালিফা এভিয়েশন ২ জন, মজুমদার এয়ার ইন্টারন্যাশনাল ২ জন, ন্যামস ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস ৬ জন, সাবালিয়া ট্রাভেলস লিমিটেড ৫ জন, ডসনসিয়ার ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস লিমিটেড ৭ জন, স্কাই হজ অ্যান্ড ওমরাহ এজেন্ট ১ জন, আল আখওয়ান ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস ৩ জন ও কমপ্যাক ট্রাভেল অ্যান্ড ট্যুরসের ১ জন।