মেইন ম্যেনু

এমপিওভুক্তির আন্দোলনে ঢাবি ভিসি’র সমর্থন

স্বীকৃতিপ্রাপ্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নন-এমপিও শিক্ষকদের দাবির প্রতি সমর্থন জানিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক বলেন, শিক্ষার মানোন্নয়নে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির দাবি যৌক্তিক। দাবি যৌক্তিক বলেই আমি সমর্থন করছি এবং এ দাবী আদায়ে আমি আপনাদের পাশে থাকবো। আন্দোলনের পাশাপাশি যাতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠদান যাতে ব্যাহত না হয় সেদিকে খেয়াল রাখবেন।

ভি সি বুধবার (১১ মে) কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক স্বীকৃতিপ্রাপ্ত সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের দাবীতে নন-এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক-কর্মচারী ফেডারেশনের উদ্যোগে “শিক্ষক-কর্মচারী মহাসমাবেশে”প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখছিলেন।

বিশেষ অতিথি মোঃ নবী নেওয়াজ এমপি ও মোঃ গোলাম মোস্তফা বিশ্বাস এমপি আলাদা বক্তব্যে বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু ১৯৭৪ সালে এদেশের সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারিকরণ করে শিক্ষা ব্যবস্থায় এক যুগান্তকারী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছিলেন। তাঁরই সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা ২০১৩ সালে সকল রেজিঃ প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারি করণের মাধ্যমে আরেকটি ইতিহাস সৃষ্টি করেন। আমরা আশা করি আপনাদের এই ন্যায্য দাবি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী সফল রাষ্ট্রনায়ক শেখ হাসিনা অবশ্যই পূরণ করবেন।

মহাসমাবেশে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি অধ্যক্ষ মোঃ এশারত আলী। সংগঠনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মোঃ শফিকুল ইসলামের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, মোঃ নবী নেওয়াজ এমপি, মোঃ গোলাম মোস্তফা বিশ্বাস এমপি, কলামিস্ট সৈয়দ আবুল মাকসুদ, কল্যাণ ট্যাস্টের সদস্য সচিব অধ্যক্ষ শাহজাহান আলম সাজু, সাবেক অতিরিক্ত সচিব সিরাজ উদ্দিন আহমেদ, সিপিবির কেন্দ্রীয় নেতা রুহিন হোসেন প্রিন্স, বাসদের কেন্দ্রীয় নেতা রাজেকুজ্জামান রতন, নন এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ঐক্য পরিষদের সভাপতি অধ্যক্ষ মিলন কুমার ঘোসাল, ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি আবুল কালাম,কাজী নুরুল হক,ড. বিনয় ভূষন রায়, মাসুম আলম, রাশিদুল ইসলাম।

এছাড়াও দাবীর প্রতি সমার্থন জানিয়েছেন বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারন সম্পাদক প্রফেস্র এম এ বারী, বাংলাদেশ কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সভাপতি নুর মোহাম্মাদ তালুকদার, বাংলাদেশ শিক্ষক কর্মচারী মহা ঐক্যজোটের মহা সচিব বাছির উদ্দিন,বাংলাদেশ ভোকেশনাল শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক প্রকৌশলী কামাল হোসেন।

সভাপতি মোঃ এশারত আলী বলেন, আগামী ২৫ মে’র মধ্যে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির সমস্যা নিরসন করতে হবে। অন্যথায় আমরা দাবি আদায়ে সারা দেশের শিক্ষক-কর্মচারী-অভিভাবক-শিক্ষার্থীসহ সর্বস্তরের জনগণকে সাথে নিয়ে আরো কঠোর কর্মসূচি দেওয়া হবে।