মেইন ম্যেনু

কওমি মাদরাসার ফল পাওয়া যাবে যেভাবে

বাংলাদেশ কওমি মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডের (বেফাক) ৩৯তম কেন্দ্রীয় পরীক্ষার ফলাফল একযোগে প্রকাশ করা হয়েছে।

বুধবার বেলা ১২টায় বেফাকের নিজস্ব কার্যালয়ে মহাসচিব মাওলানা শেখ আবদুল জব্বারের হাতে ফলাফলের ফাইল তুলে দেন পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মুফতি আবূ ইউসুফ। পরে তিনি ফলাফল প্রকাশের ঘোষণা দেন।

এবারের পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৭২ দশমিক ২৯ শতাংশ। মুমতায (স্টার মার্ক) হয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে ১১ হাজার ২৭৭ জন। জায়্য়িদ জিদ্দান (প্রথম বিভাগে পাস) হয়েছে ১৪ হাজার ৬৪৩ জন শিক্ষার্থী।

এ পরীক্ষা ৯ থেকে ১৯ মে পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষায় ৭টি স্তরে ৬৯৩টি কেন্দ্রে ৮৬ হাজার ১৭০ জন শিক্ষার্থী অংশ নেয়। এর মধ্যে ছাত্র ৫৮ হাজার ২৬১, ছাত্রী ২৭ হাজার ৯০৯ জন। এদের মধ্যে পাস করে ৬২ হাজার ২৯৩ জন শিক্ষার্থী।

ফলাফলের সব তথ্য বেফাকের ওয়েবসাইটে (www.wifaqbd.org) পাওয়া যাচ্ছে।

কওমি মাদরাসার সর্বোচ্চ ক্লাস তাকমিলে (স্নাতকোত্তর ডিগ্রি) এবারের পরীক্ষায় পাসের হার ছাত্র ৭৪ শতাংশ, ছাত্রী ৬৬ দশমিক ৬৫ শতাংশ।

তাকমিলে মেধাতালিকার শীর্ষে ঢাকা জেলার বাইতুল উলুম ঢালকানগর মাদরাসার মুহাম্মদ কামরুল হাসান। মেধা তালিকায় দ্বিতীয় হয়েছেন নারায়নগঞ্জের জামিয়া রাব্বানিয়া আরাবিয়ার মুহাম্মদ রাশেদুল ইসলাম।

তাকমীলে বালিকা শাখায় মেধাতালিকার শীর্ষে রামপুরা জাতীয় মহিলা মাদরাসার রাবিবা হুসাইন বুশরা। মেধাতালিকায় দ্বিতীয় হয়েছেন বগুড়া আল জামিয়াতুল আরাবিয়া লিল বানাত মাদরাসার মোচ্ছামত সুমাইয়া তাছনীম।