মেইন ম্যেনু

কর্মীদের গুগল কেন বিনা পয়সায় খাওয়ায়?

কর্মপরিবেশের বিচারে গুগল বিশ্বের সেরা কর্মস্থলের স্বীকৃতি পেয়েছে একাধিকবার। এর পেছনে অনেক কারণ আছে। মনোরম পরিবেশ, ছিমছাম, যা খুশি তা–ই করো, চাইলে ঘুমাও ইত্যাদি ইত্যাদি। সবচেয়ে বিখ্যাত কারণটা বোধ হয় কর্মীদের জন্য বিনা মূল্যের খাবার—যা ইচ্ছা, যত ইচ্ছা খাও। প্রত্যেক কর্মীর ২০০ ফুটের মধ্যে পর্যাপ্ত খাবারের সরবরাহ নিশ্চিত করা হয় বলে প্রচলিত আছে। প্রশ্ন হলো, কর্মীদের জন্য ২৪ ঘণ্টা বিনা মূল্যে খাবারের ব্যবস্থা থাকে কেন?

ব্লুমবার্গকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে গত বুধবার গুগলের মূল প্রতিষ্ঠান অ্যালফাবেট ইনকরপোরেটেডের নির্বাহী চেয়ারম্যান এরিক স্মিট কারণটি জানিয়েছেন। ধারণাটি প্রথম অ্যালফাবেটের প্রেসিডেন্ট সের্গেই ব্রিনের মাথায় আসে। একসঙ্গে খাবার সাধারণত পরিবারের সঙ্গে ঘরে বসে খাওয়া হয়। কর্মস্থলে পর্যাপ্ত খাবার রাখার পেছনে ঠিক একই কারণ। সের্গেই চেয়েছিলেন, কর্মীরা যেন কর্মস্থলে সহকর্মীদের নিয়ে এক পরিবারের মতো কাজ করেন, তাই এই ব্যবস্থা। এরিকের মতে, এই একটি পরিবর্তন কর্মপরিবেশ আমূল বদলে দিয়েছে।

তাই বলে নিজের ঘর মনে করলে চলবে না— মজা করে বলেন এরিক। কাজের জায়গায় তুমি যা ইচ্ছা করো, চাইলে ঘুমাতেও পারো, কেউ বাধা দেবে না। তবে বসবাসের অন্য একটা জায়গা থাকতে হবে। কর্মক্ষেত্রে গুগলের ড্রেস কোড বা পোশাকবিধি কী? এরিক বলেন, প্রচলিত ধারণা যা-ই হোক, আমাদের কিন্তু ড্রেস কোড আছে। আর তা হলো, কিছু একটা অন্তত পরতে হবে!

সূত্র: ব্লুমবার্গ