মেইন ম্যেনু

কলারোয়ার সোনাবাড়ীয়ায় সরকার কর্তৃক বরাদ্দকৃত কম্বল বিতরণ বন্ধ

কামরুল হাসান, কলারোয়া: সাতক্ষীরার কলারোয়ায় সরকার কর্তৃক বরাদ্দকৃত কম্বল যথাযথভাবে বন্টন না করে বিতরণ শুরু করায় বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে এই বিতরণ কার্যক্রম। এতে ইউপি সদস্যদের একাংশ ক্ষুব্ধ ও দ্বিধা-বিভক্ত হয়ে পড়েন। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার দুপুরে উপজেলার ৬ নং সোনাবাড়িয়া ইউনিয়নে।

এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ ইউপি সদস্যরা উপজেলা নির্বাহী অফিসার উত্তম কুমার রায় বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দিলে এ বিতরণ কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়া হয়। ক্ষুব্ধ ইউপি সদস্য নুরুল ইসলাম ও আনারুল ইসলাম জানান, এ বছর তাদের ইউনিয়নে সরকার কর্তৃক ১২৫ টি কম্বল বরাদ্দ পায়। কম্বলগুলো ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম ইউপি সদস্যদের মাঝে সমান বন্টন না দিয়েই মাদরা ওয়ার্ডের ইউপি সদস্যকে কম্বল বিতরণ শুরু করতে বলেন। এমনকি ১০/১২ টি কম্বল বিতরণও করা হয়ে যায়।

এতে তারা ক্ষুব্ধ হয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দিলে ওই ইউনিয়নে কম্বল বিতরণ বন্ধ করে দেন উপজেলা প্রশাসন। ইউপি চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম জানান, ওই দুই ইউপি সদস্যের নিকট কম্বল বিতরণের তালিকা চাওয়ার পরেও তারা তালিকা দেননি। কিন্তু অন্যান্য ইউপি সদস্যরা তালিকা দিয়েছেন বিধায় তাদেরকে বন্টন করে দেওয়া হয়েছে। সে মোতাবেক মাদরা ইউপি সদস্য কম্বল বিতরণ শুরু করলে পরে ওই দুই ইউপি সদস্য বাধা প্রদান করেন।

এদিকে, সাময়িক বরখাস্ত হওয়ার পরও কেন তিনি ইউনিয়নের কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন এক প্রশ্নের জবাবে ইউপি চেয়ারম্যান বলেন, শনিবার পর্যন্তও তিনি সাময়িক এ বিষয়ে কোন চিঠি পাননি। উপজেলা নির্বাহী অফিসার উত্তম কুমার রায় ওই অভিযোগ পত্রের প্রাপ্তি স্বীকার, কম্বল বিতরণ বন্ধ এবং ইউপি চেয়ারম্যানের সাময়িক বরখাস্তের বিষয়টিও শনিবার সন্ধ্যায় সাংবাদিকদের নিশ্চিত করেছেন।