মেইন ম্যেনু

কলেজছাত্রীর পেটে ১১১০ পাথর!

অস্ত্রোপচার করে এক কলেজছাত্রীর পেট থেকে বের করা হলো ১১১০টি পাথর। এমন বিরল ঘটনা ঘটলো কলকাতার এসএসকেএম হাসপাতালে। কোমল বাজাজ নামে ওই ছাত্রী বর্তমানে আশঙ্কাক্ত বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

গত একমাস আগে তলপেটে অসহ্য যন্ত্রণা নিয়ে যাদবপুরের একটি হাসপাতালে যান নিউ আলীপুর কলেজের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী কোমল বাজাজ। সেখানেই ধরা পড়ে- তার গলব্লাডার ও প্যানক্রিয়াসে পাথর রয়েছে। এরপরই তাকে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয় রাজ্যের একমাত্র সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল এসএসকেএমে।

সেখানে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার পর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়, কোমলের অস্ত্রোপচার করা হবে। আর এর দায়িত্ব নেন চিকিৎসক মাখনলাল সাহা।

সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ছুরি-কাচির নিচে নেয়া হয় কোমলকে। কিন্তু তার পেট কেটে চিকিৎসকরা যা দেখলেন তা মাথা ঘুরে যাওয়ার মতো। ল্যাপরোস্কোপিক অপারেশনে বেরিয়ে আসতে থাকে একের পর এক পাথর। কিন্তু তা যেন শেষ হচ্ছেই না। শেষে ওই তরুণীর পেট থেকে বের করা হয় ১১১০টি পাথর।

বিরলতম এই ঘটনার সাক্ষী রাখতে চিকিৎসকরা ওই পাথরগুলোকে একের পর এক সাজিয়ে সবাইকেই দেখান। সেই সঙ্গে তারা জানান, বর্তমানে কোমল সম্পূর্ণভাবে বিপদমুক্ত।