মেইন ম্যেনু

কুমুদিনী সরকারি মহিলা কলেজে অংশগ্রহনমূলক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

মায়া আপা কোন ব্যক্তি নয়। মায়া আপা মোবাইল এ্যাপসের মাধ্যমে নারীরা তাদের না বলা কথাগুলো সহজেই বলতে পারবে। তথ্য প্রযুক্তির এই যুগে নারী তথা সবার তথ্য সেবা প্রদান করাই হলো মায়া আপার কাজ। জানালা খুলে দেয়া মানে বন্ধ জানালা খুলে দেয়া নয়। প্রতিবন্ধকতা ভেঙ্গে দিয়ে মনের জানালা খুলে দেয়া। বুধবার দিনব্যাপী টাঙ্গাইলের কুমুদিনী সরকারি মহিলা কলেজ মিলনায়তনে ব্র্যাক ও সমকালের যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত জানালা খুলে দাও অংশগ্রহনমূলক এক কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে কুমুদিনী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর শরিফা রাজিয়া এসব কথা বলেন।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে অত্র কলেজের শিক্ষক পরিষদের সম্পাদক আনোয়ার হোসেন সমকালের এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, এই ওয়েবসাইটের ম্যাধ্যমে নারীরা তাদের স্বাস্থ্য সচেনতা আইনি ও সামাজিক সব সমস্যা সমাধানের সুযোগ পাবে। নিজেরা জানার পাশাপাশি তারা অন্যদের ওয়েবসাইটটি সম্মন্ধে ধারণা দিতে পারবে। সমাজকর্ম বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডি এম মুস্তাফিজুর রহমান বলেন, নারীরা এখনও অনেক পিছিয়ে রয়েছে। মায়া আপা মোবাইল এ্যাপস ওয়েবসাইট মেয়েদের অনেক উপকারে আসবে। তারা ঘরে বসেই ওয়েবসাইটের মাধ্যমে স্বাস্থ্যগত যত সমস্যা রয়েছে তা সমাধানের ব্যবস্থাপত্র পাবে।

সমকালের টাঙ্গাইল জেলা প্রতিনিধি আবদুর রহিমের সভাপতিত্বে কর্মশালায় আরো উপস্থিত ছিলেন ভুগোল বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ছানোয়ার হোসেন, প্রাণিবিদ্যা বিভাগের প্রভাষক ইয়াসমিন আক্তার, ভুগোল ও পরিবেশ বিভাগের প্রভাষক আবু রাসেল মোহাম্মদ সাইম, করটিয়া সাদত কলেজের বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক নজরুল ইসলাম প্রমুখ।
পুরো অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন সমকাল সুহৃদ সমাবেশ করটিয়া সাদত কলেজ শাখার সভাপতি আব্দুর জলিল ত্রিশাল। তাকে সহায়তা করেন সমকাল সুহৃদ বন্ধু, মনিরুল ইসলাম, নাবিলা আক্তার, হাবিবুললাহ, রাসেল আদনান, জগত চন্দ্র সরকার, শায়লা খাতুন, সাথি আক্তার, রুবেল রানা।
অনুষ্ঠানটি দুই ভাগে ভাগ করে পরিচালনা করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ও কর্মশালা। অতিথিদের বক্তব্য শেষে মায়া ওয়েবসাইটের কার্যক্রম ও লক্ষ্য নিয়ে কর্মশালারায় বক্তব্য রাখেন সমকালের সিনিয়র সাব এডিটর হাসান জাকির। কম্পিউটার, ল্যাপটপ, স্মার্টফোন, আইফোন ও সাধারণ ফোনের মাধ্যমে তথ্য গোপন রেখে কিভাবে একজন নারী মায়া আপার সাথে যোগাযোগ করতে পারেন সেই বিষয়গুলো উপস্থাপন করেন।
সমকাল সুহৃদ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি আহসান হাবিব প্রজেক্টরের মাধ্যমে ভিডিও প্রদর্শন করে মায়া আপার কাছ থেকে মেয়েরা স্বাস্থ্য বিষয়ক কি কি সহায়তা পেতে পারে তা ভিডিও প্রদশন করে দেখান।
মায়া আপার লিড প্রডাক্ট ম্যানেজার আনোয়ার কবির অংশগ্রহনকারীদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন। স্মার্টফোনের মাধ্যমে কিভাবে তথ্য সহজেই পেতে পারে তার বিশদ বিবরণ দেন। মায়া আপা যে একটি অনুপ্রেরণা তা তুলে ধরেন। কুমুদিনী সরকারি কলেজে শ্রেনী কক্ষে প্রায় ৮০ জন তরুণী কর্মশালায় অংশ নেন।
অনুষ্ঠানে ফাঁকে গান ও কবিতা আবৃত্তি করেন, সমকাল সুহৃদের প্রচার সম্পাদক আরিফুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক আরজিনা জাহান যুথি, সহসভাপতি জেসমিন আক্তার।
কর্মশালায় অংশগ্রহনকারী জান্নাতুল ফেরদৌস বলেন, সামাজিক সচেতনতা, স্বাস্থ্য ও মানসিক সমস্যা সমাধানের উপায় মায়া আপা। কোন হতাশা ও সংকোচ নয় নারীর অগ্রযাত্রায় এগিয়ে যাবে মায়া আপা।