মেইন ম্যেনু

কেউ মিথ্যা বললে বুঝবেন যেভাবে

কেউ আপনার সামনে দাঁড়িয়ে কথা বলছে, আপনিও কথাগুলো মনোযোগ দিয়ে শুনছেন। কিন্তু যে ব্যক্তি আপনাকে কথাগুলো বললেন, তা শুনে আপনি আশ্বস্ত হয়েছেন? নাকি আপনার মনে প্রশ্ন জাগছে ওই মানুষটির কথাগুলো বাস্তবের সঙ্গে কোনো ভাবেই মেলে না। তখন আপনি একটু হলেও বুঝতে পারছেন তিনি আপনাকে মিথ্যা কথা বলছেন। কিন্তু তাকেতো আর মুখের ওপর বলা যায় না যে, আপনি মিথ্যা কথা বলছেন। এটা আপনার সন্দেহও তো হতে পারে।

এখন প্রশ্ন হলো আপনি কিভাবে নিশ্চিত হবেন যে ওই মানুষটি আপনাকে মিথ্যা কথা বলছেন। আর একজন মানুষ মিথ্যা বললে কখনও কি ধরা সম্ভব? এ বিষয় নিয়ে এতো ইতস্তত করছেন কেন? হ্যাঁ ধরা সম্ভব।

আমাদের আশপাশে অনেক মানুষই আছেন যারা সবসময় মিথ্যাকে সত্য বলে চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে তাদের কিছু লক্ষণ আছে, যা দেখে সহজেই বোঝা যায় তারা মিথ্যা বলছেন। আসুন জেনে নেই কি সেই লক্ষণ যা শুনলে আপনি বুঝে যাবেন কেউ আপনাকে মিথ্যা বলছে?

* আপনি প্রশ্ন করার পর যখন কোনো মানুষ আপনার প্রশ্নের উত্তর দেবার সময় একটা লম্বা শ্বাস নিয়ে কথা বলা শুরু করেন, তখন বুঝে নেবেন, সে মিথ্যা বলছে। কারণ, সত্যি কথা সহজাত ছন্দে আসে। আর মিথ্যা বলার জন্য আগে থেকে চিন্তা করে নিতে হয়।

* মিথ্যে কথা বললে, আপনি তার গলার স্বরে বুঝতে পারবেন। কারও কথা বলার সময় যদি গলার স্বর খুব ওঠা নামা করে, তাহলে বুঝবেন, ওই শিশু বা ব্যক্তি আপনাকে মিথ্যা কথা বলছে।

* অনেক সময় আপনার সামনের মানুষের মুখ বা শারীরিক অবস্থা দেখেও আপনি বুঝতে পারবেন, যে সেই মানুষটি মিথ্যা কথা বলছে কি না। সাধারণত, মিথ্যা কথা বলার সময় মানুষের মাথা অনেক বেশি নড়াচড়া করে। আর আর হাত-পা নাড়িয়ে চোখের পলক খুব বেশি উঠা-নামা করে।

* মিথ্যা কথা ধরার জন্য সামনের মানুষের চোখের দিকে তাকান। চোখ সত্য ও মিথ্যা কথা সহজেই বোঝে। কেউ মিথ্যা বলার সময় মানুষ, চোখে চোখ রেখে কথা বলতে পারে না। এছাড়া মিথ্যা বলার সময় চোখের পলক খুব বেশি ওঠা-নামা করে।