মেইন ম্যেনু

ক্ষেপে গিয়ে মরুভূমিতে মালিককে খুন করল উট!

একে ভয়াবহ রৌদ্র, তার ওপর মরুভূমির গরম। দুয়ে মিলে এমন পরিস্থিতি যে মরুভূমিতেই যারা থাকতে স্বাচ্ছন্দ বোধ করে তারাও এই গরম সহ্য করতে পারছে না। রাজস্থানের একটি উট এমন গরমে ক্ষেপে উঠে মেরেই ফেলেছে তার মালিককে। নিহতের নাম উর্জা রাম। তার বাড়ি বারমেরের মাংতা গ্রামে।

জানা গেছে, ভোর বেলায় নিজের উটকে মাঠে বেঁধে দেন উর্জা রাম। তিনি ঠিক করেছিলেন, খানিক বাদে তাকে নিয়ে আসবেন। কিন্তু বাড়িতে আচমকা অনেক অতিথি এসে যাওয়ায় উর্জা ভুলে গিয়েছিলেন উটের কথা। যখন তাকে আনতে যান, ততক্ষণে উটের মাথায় রোদ্দুর তাপ আর রাগ দুটোই চড়ে গেছে। প্রচণ্ড রেগে মালিককে দেখা মাত্রই সে খুন করে ফেলে তাকে।

এ ব্যাপারে উর্জার এক প্রতিবেশী জানিয়েছেন, প্রথমে উট মালিকের সঙ্গে কয়েক পা এগিয়েছিল। হঠাতই ঘুরে দাঁড়িয়ে দড়িতে হ্যাঁচকা টান মারে সে। টানের চোটে উর্জা রাম শূন্যে ছিটকে গিয়ে মাটিতে আছড়ে পড়েন। আর তখনই তার সারা গায়ে উন্মাদের মত কামড়াতে শুরু করে উটটি। গলায় প্রচণ্ড কামড়ে উর্জার মৃত্যু হয়। প্রতিবেশীরা সামনেই ছিলেন, কিন্তু ঘটনার আকস্মিকতায় কিছু করে উঠতে পারেননি।

এদিকে গোটা ঘটনায় হতভম্ব উর্জার পরিবারের লোকজন। তবে তার পরিবারের লোকজন জানিয়েছেন, এত দিনের পোষ্যকে পরিত্যাগ করবেন না। এত গরমে খাঁ খাঁ রোদ্দুরে টানা দাঁড়িয়ে থাকতে হলে উটের শান্তশিষ্ট মাথাতেও রক্ত চড়ে যাওয়া যে স্বাভাবিক, তা তাঁরা মেনে নিচ্ছেন।-এপিবি