মেইন ম্যেনু

খালেদার ‘বিশেষ বার্তা’ রাতে

লন্ডন সফরের আগে ‘বিশেষ বার্তা’ দেওয়ার জন্য দীর্ঘদিন পর জোটের শরিক দলের শীর্ষ নেতাদের নিয়ে বুধবার রাতে বৈঠকে বসছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

রাত সাড়ে ৮টায় বিএনপি নেত্রীর গুলশান কার্যালয়ে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হবে। চলতি বছরে শরিকদের সঙ্গে বিএনপি নেত্রীর এটাই প্রথম বৈঠক। এর আগে গত বছরের ২২ নভেম্বরে সর্বশেষ বৈঠকে বসেছিলেন খালেদা জিয়া। ওই বৈঠকের পর এক মাসের মধ্যে নতুন করে দ্বিতীয় দফায় সরকারবিরোধী আন্দোলনে যায় বিএনপি জোট। যদিও শেষ পর্যন্ত আন্দোলন ‘ফলপ্রসূ না হওয়ায়’ তিন সিটি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কর্মসূচিতে ইতি টানে জোটটি।

এদিকে আন্দোলনে নির্দলীয় সরকারের অধীনে মধ্যবর্তী নির্বাচনের দাবি আদায়ে ব্যর্থ হলে তখন খবর বের হয় ভেঙে যাচ্ছে ২০ দলীয় জোট। যদিও বিষয়টি গুজব বলে জোটনেতারা বিভিন্ন সময়ে গণমাধ্যমে কাছে তাদের অভিমত ব্যক্ত করেন।

জোটটির সূত্র বলছে, আন্দোলনের পর বিএনপি নেতৃত্বাধীন জোটের ভবিষ্যতের কর্মপরিকল্পনা নিয়ে জোট নেতারা অনেকটাই অন্ধকারে থেকেছেন। দীর্ঘদিন শরিকদের সঙ্গে কোনো ধরনের বৈঠকে না বসায় তাদের মধ্যে হতাশা আর ক্ষোভ বাড়তে থাকে। অনিশ্চিত রাজনৈতিক ভবিষ্যত নিয়ে উৎকণ্ঠায় পড়েন জোটটির অনেক নেতা। অভিযোগ ওঠে, সরকার বিএনপি ও জোট ভাঙার চেষ্টার করছে। বিএনপির অনেক নেতাও বিভিন্ন সভা-সেমিনারেএ বিষয়ে তাদের অভিযোগের কথা জানান।

সূত্র বলছে, তবে দু-একদিনের মধ্যেই লন্ডন সফরে যাবেন বিএনপি চেয়ারপারসন। তার এই সফরের আগে জোট অটুট রাখতে এবং কোনো ধরনের প্ররোচণায় পা না দিতে শীর্ষ নেতাদের বিশেষ নির্দেশনা দেবেন বিএনপিপ্রধান। এজন্য লন্ডন সফরের আগে জোট নেতাদের সঙ্গে বুধবার রাতে বৈঠকে বসতে যাচ্ছেন তিনি।

বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয় সূত্র জানায়, মূলত দীর্ঘদিন বৈঠক না হওয়ায় এবং নেত্রীর লন্ডন সফরের আগে শরিক নেতাদের বিশেষ ম্যাসেজ (বার্তা) দিতেই এই বৈঠক আহ্বান করা হয়েছে। লন্ডন সফর ফিরেও শরিক দলের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন তিনি।

গতমাসে পবিত্র ওমরাহ পালনের জন্য সৌদি আরব সফরের কথা থাকলেও ‘বিশেষ কারণে’ সেই সফর স্থগিত করেন খালেদা জিয়া। দীর্ঘদিন পর তিনি বিদেশ যাচ্ছেন। লন্ডন থাকা বড় ছেলের সঙ্গে খালেদা জিয়া বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলবেন বলে সূত্র জানিয়েছে।