মেইন ম্যেনু

খালেদা জিয়ার সৌদি সফর বাতিল

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্ধারিত সৌদি আরব সফরটি বাতিল করা হয়েছে।

সৌদি আরব বিএনপির সভাপতি আহমদ আলী মুকিব নিশ্চিত করেছেন। তবে কি কারণে হঠাৎ বেগম খালেদা জিয়ার সৌদি আরব নির্ধারিত সফরটি বাতিল করা হয়েছে সে সম্পর্কে তিনি কিছু জানান নি।

তবে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, তারেক রহমানের ওমরাহ ভিসার জন্য দেরিতে ট্রাভেল ডকুমেন্ট জমা দেয়ার কারণে ভিসা পেতে বিলম্ব হচ্ছে। তাই বেগম জিয়া ওমরা পালনে সৌদি অারবে গেলেও তারেক রহমানের আসাটা প্রায় অনিশ্চিতই। সেকারণেই হয়তো বেগম জিয়া সৌদি সফর বাতিল করে থাকতে পারেন।

এদিকে, যুক্তরাজ্যে অবস্থানরত সাংবাদিক মুনজের আহমদ চৌধুরী তারেক রহমানের ঘনিষ্টজনদের বরাত দিয়ে জানান, বুধবার ওমরাহ পালনের উদ্দেশ্যে লন্ডন ত্যাগের কথা ছিল বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদের। কিন্তু মঙ্গলবার লন্ডন সময় রাত পর্যন্ত তারেক রহমানের ঘনিষ্টজনরা জানিয়েছেন, এখন পর্যন্ত তার ওমরাহে যাবার বিষয়টি চুড়ান্ত হয়নি।

মা বেগম খালেদা জিয়ার সাথে ওমরাহ পালনের ইচ্ছে ছিল তারেক রহমানের। তবে কী কারণে ওমরাহ পালনে যাচ্ছেন না তারেক রহমান তা জানা জায়নি। তবে বিএনপির কোনো বিশ্বস্ত সুত্রই এ বিষয়ে নিশ্চিত তথ্য দিতে পারে নি।

বিএনপির মিডিয়া উইংয়ের দুই সদস্য শয়রুল কবির খান এবং শামুসুদ্দিন দিদার জানিয়েছেন, তারা এ বিষয়টি এখনো নিশ্চিত নন।

বিএনপির মুখপাত্র আসাদুজ্জামান রিপনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘চেয়ারপারসন সৌদি যাচ্ছেন কিনা এ বিষয়ে আমি বলতে পারছি না। তবে আমি শুনেছি তিনি (খালেদা জিয়া) যাবেন না।’