মেইন ম্যেনু

কলাবাগানে জোড়া খুন

খুনিদের পালানোর ছবি সিসি ক্যামেরায়

রাজধানীর কলাবাগানে জোড়া খুনের ঘটনায় খুনিদের পালানোর ছবি পাশের একটি ভবনের সিসি ক্যামেরায় ধরা পড়েছে। এতে দেখা যায়, পাঁচ খুনি দৌড়ে পালিয়ে যাচ্ছে।

সোমবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে সিসি ক্যামেরার ফুটেজ থেকে পালানোর ছবি সংগ্রহ করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

ফুটেজে দেখা যায়, রাস্তায় লোকজন ছিল, তবে কম। একটি রিকশা যেতে দেখা যায়। এ সময় প্রথমে এক যুবক দৌড়ে পালায়। এরপর একে একে তিন যুবক কিছুক্ষণ পরপর পালিয়ে যায়। প্রায় ৩০-৪০ সেকেন্ডের ব্যবধানে একই পথে আরেক যুবক দৌড়ে পালায়।

ঘটনাস্থল পরিদর্শনের পর ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, খুন ‍করে পালিয়ে যাওয়ার সময় কলাবাগান থানার এএসআই মমতাজ উদ্দিন এক দুর্বৃত্তকে জাপটে ধরেন। কিন্তু ওই দুর্বৃত্ত চাপাতি দিয়ে কোপ দিয়ে ছুটে যায়। এএসআই মমতাজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

ডিএমপি কমিশনার আরো জানিয়েছেন, এরই মধ্যে অনেক আলামত ও তথ্য পাওয়া গেছে। এটা সুপরিকল্পিত হত্যাকাণ্ড। কুরিয়ার সার্ভিসের পার্সেল দেওয়ার নাম করে খুনিরা বাসায় প্রবেশ করে।

সোমবার সন্ধ্যার কিছু আগে আনুমানিক বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে একদল দুর্বৃত্ত নিজেদের কুরিয়ার সার্ভিসের কর্মী বলে পরিচয় দিয়ে কলাবাগান থানার উত্তর ধানমন্ডির ৩৫ নম্বর বাসায় প্রবেশ করে। সেখানে মার্কিন দূতাবাসের প্রাক্তন প্রটোকল অফিসার ও বর্তমানে দাতা সংস্থা ইউএসএইডের কর্মকর্তা জুলহাজ মান্নান ও তার বন্ধু মাহবুব তনয়কে কুপিয়ে হত্যা করে তারা।

হত্যার পর খুনিরা পালিয়ে যাওয়ার সময় ফাঁকা গুলি করে। খুনিদের পথরোধ করতে গিয়ে ওই বাসার দারোয়ান আহত হন। তিনি ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

নিহত জুলহাজ প্রাক্তন পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীপু মনির খালাতো ভাই। তিনি বাংলাদেশে সমকামীদের নিয়ে প্রকাশিত রূপবান পত্রিকার সম্পাদক ছিলেন।