মেইন ম্যেনু

গায়ে হলুদ শেষে প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ে বন্ধ

ঠাকুরগাওয়ের রাণীশংকৈলে থেমে নেই বাল্য বিবাহ, যে কোনভাবে এবং উপায়ে চলছেই। রানীশংকৈল উপজেলায় শুক্রবার সরকারী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্রী হেনা(১৫)’র বিবাহ’র ধুমধামভাবে আয়োজন চলছিল গায়ে হলুদ শেষ এখন বর আসবে কনে নিতে । ঠিক সে মহুর্তে খবর পেয়ে যায় প্রশাসনের উচ্চ কর্মকর্তরা তাৎক্ষনিক ভাবে নির্দেশ আসে বিবাহ বন্দের জন্য উপজেলা সহকারী ভুমি অফিসার মাষফাকুর রহমানের কাছে।
তিনি সঙ্গীয় পুলিশ সাথে হাজির হন কনের বাসভবনে বন্ধ করে দেন বিয়ের সব আয়োজন বাল্য বিবাহ থেকে রক্ষা পান স্কুল ছাত্রী হেনা। হেমা আক্তার হেনা উপজেলা সংলগ্ন ফায়ার সার্ভিস এলাকা দক্ষিণ সন্ধ্যারই গ্রামের হেলালউদ্দিন’র মেয়ে।
পুলিশ সুত্রে জানা যায়, ঠাকুরগাওয়ের লক্ষী কোল্ডষ্টোর এলাকার পাহাড় ডাঙ্গা গ্রামের আইয়ুবের ছেলে মাহাবুব আলম(১৮)’র সাথে হেনার বিয়ে হওয়ার কথা ছিল।
উপজেলা সহকারী কমিশনার ভ’মি অফিসার মাসফাকুর রহমান বাল্য বিয়ে বন্ধের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।