মেইন ম্যেনু

গীতা প্রতিযোগিতায় হিন্দুদের হারিয়ে শিরোপা জিতলো মুসলিম বালিকা

ভগবত গীতা পাঠ প্রতিযোগিতায় হিন্দুদের হারিয়ে সেরার শিরোপা জিতে নিলো এক পাঁচ বছরের মুসলিম মেয়ে। এই ঘটনার পর তাকে ঘিরে মাতোয়ারা সকলেই। ভারতের রাজ্য ওড়িশায় এই প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয় বলে জানা গেছে।

খবরে প্রকাশ, ওড়িশার উপকূলবর্তী কেন্দ্রপাড়া জেলায় সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ভুক্ত ফেরদৌসী নামের ওই মেয়েটি গতকাল হওয়া ভগবত গীতা প্রতিযোগিতায় বয়সে বড় অন্য প্রতিযোগীদের হারিয়ে সেরার শিরোপা পায়। খবর এবিপির।

জানা গিয়েছে, স্থানীয় সোভান্য আবাসিক স্কুলের প্রথম শ্রেণিতে পড়ে ফেরদৌসী। তার বয়সীরা যখন বর্ণমালা চিনতে ব্যস্ত, সেই সময় এই খুদে ছাত্রী হিন্দু ধর্মীয় পাঠ্যপুস্তক একেবারে আত্মস্থ করে ফেলেছে। প্রতিযোগিতার বিচারকরা ফেরদৌসীকে অভূতপূর্ব প্রতিভা বলে উল্লেখ করেন। জানান, সাব-জুনিয়র (৬-১৪ বছর বয়সীদের জন্য) ক্যাটেগরিতে প্রথম স্থান দখল করেছে সে।

এক বিচারক জানান, ফিরদৌসের উচ্চারণ অসম্ভব স্পষ্ট ছিল। যে ভাবে এক নিঃশ্বাসে সে গীতাপাঠ করল, তা দেখে সকলেই স্তম্ভিত। তিনি জানান, ফেরদৌসীকে তিনি ১০০ নম্বরের মধ্যে ৯০ দিয়েছেন। ফিরদৌসীর এই কৃতিত্বে গর্বিত মা আরিফা বিবি। তিনি জানান, মেয়ের সাফল্যে আমি দারুণ খুশি। গোটা কৃতিত্ব ওর আর স্কুলশিক্ষকদের, জানান আরিফা।

পুরস্কার জিতে স্বভাবতই উচ্ছ্বসিত ফিরদৌস। ফেরদৌসী বলেন, আমার শিক্ষকরা আমাকে নৈতিক শিক্ষা দিয়েছেন। আমার মধ্যে ‘নিজে বাঁচতে ও সকলকে ভালবাসতে’ শিখিয়েছেন। পাঁচ বছরের কিশোরী আরও বলে, আমি বিশ্বাস করি সমগ্র মনুষ্যজাতি এক বৃহৎ পরিবারের অঙ্গ।