মেইন ম্যেনু

গেইল ঝড়ে লণ্ডভণ্ড চিটাগাং

প্রথম দুই ম্যাচের সুপার ফ্লপ। করেছেন ৬ ও ৪। তার ভক্তরা হতাশ। কিন্তু ক্রিস গেইল কি আর টানা ব্যর্থ হওয়ার পাত্র? মোটেও না। নিজের তিন নম্বর ম্যাচে নিজেকে ফিরে পেলেন ক্যারিবিয়ান ব্যাটিং ঝড়। ৯ ছ্ক্কা ও ৬ চারে হাঁকালেন ৯২ রানের (৪৭ বলে) তাইফুন ইনিংস।গেইলের তুখোড় এ ইনিংসেই বরিশাল বুলসের কাছে৮ উইকেটে উড়ে গেল চিটাগাং ভাইকিংস (৩০ বল বাকি থাকতে)।

১৩৬ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নামে বরিশাল বুলস। রনি তালুকদার (১) ও মেহেদী মারুফ (১৮) ফিরে গেলে শুরুর ধাক্কা সামলান ক্রিস গেইল। শুরুতে নিজেকে গুটিয়ে রাখলেও আস্তে আস্তে হাত খুলে খেলতে শুরু করেন ক্যারিবিয়ান ব্যাটিং ঝড়। প্রথম দুই ম্যাচে রান পাওয়ার কারণেই শুরুতে হয়ত কিছুটা গুটিয়ে রাখেন গেইল। এ দিন ৩৫ বলে পূরণ করেন হাফ সেঞ্চুরি। অধিনায়ক মাহমুদ উল্লাহ রিয়াদকে সঙ্গে নিয়ে দলকে পৌঁছে দেন সহজ জয়ে। রিয়াদ করেন অপরাজিত ১৯ রান।

এরআগে চিটাগাং ভাইংসের বিপক্ষে টসে জিতে বরিশাল বুলস। ব্যাট করতে নেমে ৭ উইকেটে ১৩৫ রান করে চিটাগাং।বড় স্কোর করতে না পারলেও শুরুটা ভালো হয়েছিল চিটাগাংয়ের। প্রথম জুঁটিতে আসে ৫২ রান। দিলশান ও এনামুল হক প্রত্যেক ২৮ রান করেন। এ দুজনের ফিরে যাবার পর রান রেটে ভাটা পড়ে চিটাগাংয়ের। উমর আকমল ২৫ ও আসিফ আহমেদ ১৭ রান করলে চিটাগাংয়ের স্কোর দাঁড়ায় ৭ উইকেটে ১৩৫।