মেইন ম্যেনু

ঘরেই তৈরি করে নিন হারবাল শ্যাম্পু

চুল পরিষ্কার করতে শ্যাম্পু ব্যবহার করা হয়। শ্যাম্পু চুল পরিষ্কার করার পাশাপাশি চুলকে করে তোলে নরম, কোমল, স্বাস্থ্যোজ্বল। বাজার ঘুরলে নানা ব্র্যান্ডের নানা রকম শ্যাম্পু দেখতে পাওয়া যায়। কোনটি চুলের খুশকি দূর করে দেয়, আবার কোনটি চুলকে করে তোলে সিল্কি। সাধারণত সবাই বাজার থেকে পছন্দের শ্যাম্পুটি বেছে নেন। কিন্তু শ্যাম্পুর রাসায়নিক উপাদান আপনার চুলের ক্ষতি করে থাকে। অনেক সময় ভুল শ্যাম্পু ব্যবহারের কারণে চুল পড়া, খুশকি দেখা দেয়।

বাজারের শ্যাম্পু ব্যবহার করার পরিবর্তে নিজেই তৈরি করে নিতে পারেন হারবাল শ্যাম্পু। প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে তৈরি হওয়ায় এর কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। আসুন তাহলে জেনে নিই হারবাল শ্যাম্পু তৈরি করার উপায়।

১। মেথির শ্যাম্পু

সারারাত মেথি পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। এরপর পেস্ট তৈরি করে নিন। এরসাথে এক অংশ শিকাকাই এবং আধা অংশ সবুজ বেসন(green gram flour) মিশিয়ে নিন। এটি শ্যাম্পু হিসেবে ব্যবহার করুন।

২। রিঠার শ্যাম্পু

৫০০ মিলিলিটার পানিতে ৬-৭টি রিঠা, ৫-৬টি শিকাকাই এবং কয়েকটি আমলকি সারারাত ভিজিয়ে রাখুন। পরের দিন মিশ্রণটি চুলায় জ্বাল দিন। তারপর ঠান্ডা হলে ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিন। মিশ্রণটি থেকে ফেনা উঠে আসলে ব্লেন্ড করা বন্ধ করুন। এবার এটি শ্যাম্পু হিসেবে ব্যবহার করুন।

৩। শিকাকাই এবং আমলকির শ্যাম্পু

আমলকি, রিঠা এবং শিকাকাই আলাদা আলাদা পাত্রে সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। সকালে ছেঁকে মিশ্রণ থেকে পানি আলাদা করে ফেলুন। এই পানি শ্যাম্পু হিসেবে ব্যবহার করুন। এটি চুল পরিষ্কার করে, খুশকি দূর করে।

৪। জবা ফুলের শ্যাম্পু

১৫টি জবা ফুলের পাতা এবং ৫-৬টি জবা ফুল এক কাপ পানিতে ৫ মিনিট জ্বাল দিন। পানি ঠান্ডা হলে পেস্ট তৈরি করে নিন। এরসাথে ১/৪ কাপ বেসন মেশাতে পারেন। এবার এটি চুলে ব্যবহার করুন। এটি ড্রাই শ্যাম্পু হিসেবে ব্যবহার করা যায়।

৫। রিঠা এবং শিকাকাই শ্যাম্পু

সমপরিমাণে রিঠা, শিকাকাই এবং শুকনো ব্রাহ্মী পাতা পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। সকালে এটি চুলে শ্যাম্পু হিসেবে ব্যবহার করুন। এটি চুলের ময়লা দূর করার পাশাপাশি চুল সিল্কি ঝলমলে করে তুলবে।



« (পূর্বের সংবাদ)