মেইন ম্যেনু

ঘরে ঢুকে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণ করলো ৩ যুবক

মাগুরা প্রতিনিধি ॥ মাগুরায় এক মাদ্রাসা ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়ে রবিবার সন্ধ্যায় মুমুর্ষ অবস্থায় সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার বাড়ি সদর উপজেলার শ্রীফলতলা গ্রামে। সে সেখানকার একটি হাফেজিয়া মাদ্রাসার ৪র্থ শ্রেণীর ছাত্রী।

সদর হাসপাতালে উপস্থিত মেয়েটির নিকটাত্মীয় সাইফুল ইসলাম জানান, বিকাল ৩টার দিকে মেয়েটি নিজ বাড়ির একটি কক্ষে শুয়ে ছিল। এ সময় বাড়িতে আর কেউ উপস্থিত না থাকার সুযোগে একই গ্রামের সবুর আলী, মহিরুল ইসলাম, মিজানুর রহমান নামের ৩ যুবক তার ঘরে ঢুকে মেয়েটির হাত-পা বেধে ফেলে। এরপর মেয়েটিকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে অচেতন অবস্থায় ফেলে রেখে তারা পালিয়ে যায়। ঘটনার বেশ কিছু সময় পর মেয়েটির মাসহ অন্যরা বাড়িতে ফিরে মেয়েটিকে অচেতন ও রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে সন্ধ্যা ৬টার দিকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

মাগুরা সদর হাসপাতালের চিকিৎসক সামছুন্নাহার লাইজু জানান, রক্তাক্ত অবস্থায় মেয়েটিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার চিকিৎসা চলছে।

সদর হাসপাতালে উপস্থিত মাগুরার সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার সুদর্শন কুমার রায় জানান, এ বিষয়ে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।