মেইন ম্যেনু

ঘুমানোর আগে যে ৫টি কাজ কমাবে আপনার ওজন!

ওজন কমানোটা এখন শুধু সৌন্দর্য রক্ষাতেই প্রয়োজন নয়, প্রয়োজন স্বাস্থ্য রক্ষায় এবং অসুস্থতা প্রতিরোধ করতে। কারণ একটু ওজন বেড়ে গেলে কিংবা মুটিয়ে গেলে দেহে নানা ধরণের মারাত্মক সব রোগের বাসা বাঁধার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। তাই ওজনটাকে একটু কমিয়ে রাখার জন্য আমাদের চেষ্টার অন্ত নেই।

ডায়েটিং বাদেও ওজন কমানোর জন্য অনেক কাজ করা যেতে পারে। শুধুমাত্র ডায়েট করলেই ওজন কমে না, এর পাশাপাশি করতে হয় অনেক কিছু। আপনি জানেন কি, ঘুমানোর আগে কিছু ছোট্ট কাজে আপনি কমাতে পারবেন ওজন? শুনতে আশ্চর্য মনে হলেও এটি সত্যি। চলুন তবে দেখে নেয়া যাক ঘুমানোর আগে যে কাজগুলো কমাবে ওজন।

ghum2

কম সোডিয়াম সমৃদ্ধ রাতের খাবার

রাতের খাবার তালিকা নির্বাচন করুন সতর্কতার সাথে। সোডিয়াম পুরো রাত আমাদের দেহে রয়ে যায় এবং খাবার হজমে বাঁধা প্রদান করে থাকে। তাই রাতের বেলার খাবার নির্বাচনে সোডিয়াম সমৃদ্ধ খাবার বাদ দিন। বেশি লবণাক্ত কিছুও খাবেন না। এতে করে ঘুমের সময়ও নির্বিঘ্নে চলবে হজমক্রিয়া। এবং আপনি কমাতে পারবেন ওজন।

রাতের বেলার সামান্য ব্যায়াম

সন্ধ্যার ঠিক পরপর এবং রাতের খাওয়ার আগে আগে কিছুটা শারীরিক ব্যায়াম করে নিন। এতে করে বেশ ঘাম ঝরবে আপনার। সারাদিনের হাবিজাবি ধরণের সকল খাবার হজম হতে সাহায্য করবে। আপনার ওজন কমতে সহায়তা করবে। এবং এর পাশাপাশি আপনি ক্লান্ত হবেন ও ঘুম ভালো হবে।

ঘুমানোর ১ ঘণ্টা আগ পর্যন্ত প্রচুর পরিমাণে পানি পান করুন

পানি আমাদের দেহের জন্য অত্যন্ত প্রয়োজনীয় একটি জিনিস। দেহকে সুস্থ রাখার পাশাপাশি এটি আমাদের ওজন কমাতে বেশ সাহায্য করে। ঘুমানোর অন্তত ১ ঘণ্টা আগ পর্যন্ত প্রচুর পরিমাণে পানি পান করুন। এতে করে দেহের সকল ক্ষতিকর টক্সিন দ্রুত দূর হবে। এবং মুটিয়ে যাওয়ার ভয় কম থাকবে।

ghum1

একেবারে অন্ধকার ঘরে ঘুমানোর অভ্যাস করুন

জার্নাল অফ পিনাল রিসার্চের মতে মেলাটোনিন নামক হরমোনটি আমাদের দেহে ক্যালোরিনাশক ব্রাউন ফ্যাট তৈরি করে এবং আমাদের ওজন কমাতে সাহায্য করে। এই মেলাটোনিন আমাদের দেহে উৎপন্ন হয় ঘুটঘুটে অন্ধকারে। তাই রাতে ঘুমানোর সময় ঘরটি একেবারে অন্ধকার করে নিন। এটি ওজন কমাতে সাহায্য করবে।

ঘর ঠাণ্ডা করে নিন

যে রুমটি অন্যান্য রুমের তুলনায় বেশি ঠাণ্ডা সেই ঘরে ঘুমালে এর প্রভাব পড়বে আপনার ওজনের ওপর। ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ হেলথ ক্লিনিক্যাল সেন্টারের একটি রিসার্চে জানা যায় যারা অপেক্ষাকৃত ঠাণ্ডা ঘরে ঘুমান তাদের ঘুমের সময় ক্যালরি বার্ন হতে থাকে বেশি। এতে করে আপনি ঘুমিয়ে ঘুমিয়েও কমাতে পারবেন ওজন।