মেইন ম্যেনু

চট্টগ্রামে নতুন জঙ্গি ‘হামজা ব্রিগেড’ (ভিডিও)

শহীদ হামজা ব্রিগেড চট্টগ্রামকেন্দ্রিক গড়ে ওঠা একটি নতুন জঙ্গি সংগঠন। র‌্যাবের অভিযানে প্রথম চট্টগ্রামের হাটহাজারীর একটি মাদ্রাসা থেকে আটক ১২ জনের স্বীকারোক্তিতে উঠে আসে এই জঙ্গি সংগঠনের নাম।

এর সূত্র ধরে গত ফেব্রুয়ারি মাসে চট্টগ্রামের বাঁশখালীর লটমনির পাহাড় এলাকায় সন্ধান মেলে সংগঠনটির বিশাল আস্তানার। যেটি ছিল সামরিক কায়দায় অন্যতম একটি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র। আস্তানা থেকে উদ্ধার করা হয় অস্ত্র-গোলাবারুদ ও রণকৌশলের যাবতীয় সরঞ্জাম। আস্তানা থেকে আটক করা হয় প্রশিক্ষণরত পাঁচ জঙ্গিকে। এরপর নগরীর একটি বাড়িতে অভিযান চালিয়ে এই সংগঠনের আরো তিনজনকে অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ আটক করে র‌্যাব।

গত ১৩ এপ্রিল চট্টগ্রাম মহানগরীতে ২৪ ঘণ্টার অভিযানে তিনটি এলাকা থেকে চার জঙ্গিকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। তারা হলো মাসুদ রানা, কামাল উদ্দিন, আশরাফ আলী এবং অস্ত্র ব্যবসায়ী মোজাহের। তাদের কাছ থেকে ৫টি একে-২২ রাইফেল, ৫টি বিদেশি পিস্তল, ১০টি ম্যাগজিন ও বিপুলসংখ্যক গুলি উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারের পর এই জঙ্গিরা শহীদ হামজা ব্রিগেডের সদস্য বলে র‌্যাবের কাছে স্বীকার করে।

এর আগে গত ২১ ফেব্রুয়ারি রাতে চট্টগ্রামের বাঁশখালীর সাধনপুর এলাকার লটমনি পাহাড়ের গহিন জঙ্গলে অভিযান চালিয়ে জঙ্গি প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের সন্ধান পায় র‌্যাব। এরপর থেকে এই জঙ্গি আস্তানায় অস্ত্র সরবরাহকারী এবং এর অর্থ জোগানদাতাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালিয়ে আসছিল র‌্যাব।

সর্বশেষ ১৮ আগস্ট সংগঠনটির প্রধান অর্থ জোগানদাতা হিসেবে অভিযুক্ত সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী এবং বিএনপির নেতা সৈয়দ ওয়াহিদুল আলমের মেয়ে ব্যারিস্টার শাকিলা ফারজানা এবং তার সহযোগী দুই আইনজীবীকে ঢাকার ধানমন্ডি থেকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-৭-এর একটি দল। সংগঠনটির সামরিক প্রশিক্ষণ ও নানা কর্মকাণ্ড পরিচালনা করার জন্য বিভিন্ন সময়ে এই তিন আইনজীবী অর্থ দিয়েছেন। তারা শহীদ হামজা ব্রিগেডের নেতাদের ১ কোটি ৮ লাখ টাকা ব্যাংকের মাধ্যমে প্রদান করেছেন।

হামজা ব্রিগেডের নেতাদের ব্যাংক হিসাব অনুসন্ধান করে এই অর্থায়নের বিষয়টি নিশ্চিত হয় র‌্যাব। এরপর তিন আইনজীবীকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে চট্টগ্রাম র‌্যাব-৭-এর অধিনায়ক লে. কর্নেল মিফতা উদ্দিন আহম্মেদ নিশ্চিত করেন।

র‌্যাব জানায়, মূলত নির্যাতিত রোহিঙ্গা মুসলমানদের সহযোগিতা করার নামে হামজা ব্রিগেডের সদস্যরা প্রথমে ‘লাভ ফর রোহিঙ্গা’ নাম দিয়ে একটি সংগঠন গড়ে তোলে। এই নামের আড়ালে মূলত তারা জঙ্গি কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিল। বাংলাদেশে এর অর্থ জোগানদাতা হিসেবে মধ্যপ্রাচ্যের একটি দেশের লোকও জড়িত রয়েছে বলে জানিয়েছেন র‌্যাব কর্মকর্তারা।

ভিডিও ক্লিপ- চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে শহীদ হামজা ব্রিগেডের সামরিক প্রশিক্ষণ ঘাঁটি। গত এপ্রিল মাসে এই ঘাঁটিতে অভিযান পরিচালনা করে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র, সামরিক সরঞ্জাম ও কয়েকজন জঙ্গিকে গ্রেফতার করে র‌্যাব।