মেইন ম্যেনু

“চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি”

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ছাত্রছাত্রীদের বহুল প্রতীক্ষিত নবনির্মিত দুটি আবাসিক হল উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় তার কার্যালয়ে বসে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে হল দুটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী।

উল্লেখ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোরম পরিবেশে নির্মিত আবাসিক হল দুটি হল যথাক্রমে- বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান হল এবং জননেত্রী শেখ হাসিনা হল। উদ্বোধনকালে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বলেন ‘চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় একটি চমৎকার বিশ্ববিদ্যালয়। এ বিশ্ববিদ্যালয় প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের লীলাভূমি।’ এসময় তিনি অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকল শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারিদের অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান।

12079605_1660237480897749_4944336916472434929_n

হল উদ্বোধন উপলক্ষে চট্টগ্রাম জেলা পরিষদ মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।এ সময় মাননীয় উপাচার্য দু’টি হলের নির্মাণ কাঠামো এবং সুযোগ-সুবিধা সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করেন।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. শামসুল হুদা,প্রক্টর আলী আহসান চৌধুরী, চবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি ড. মনসুর আহমেদ এবং অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ।

আরো উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলমগীর টিপু এবং সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বী সুজন।

2015_10_08_18_06_16_zmobTpobIuLf52HevwrcmcJ1708jZq_800xauto

উল্লেখ্য ছাত্রদের জন্য নির্মিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলে আসন রয়েছে ১৮৬টি।প্রায় ৪৫ হাজার বর্গফুটের হলটিতে রয়েছে পাঠাগার, ক্যান্টিন ও প্রার্থনার জন্য আলাদা কক্ষ।পাহাড়ের কোল ঘেঁষে নির্মিত চমৎকার এ হলে বাড়তি সুবিধা হিসেবে ইনডোর গেমস রুম, কমন রুম, দোকান ও লন্ড্রীও রয়েছে।

অপরদিকে ছাত্রীদের জন্য নির্মিত চারতলা বিশিষ্ট জননেত্রী শেখ হাসিনা হলের মোট আয়তন প্রায় ৯৮ হাজার ৫০০ বর্গফুট।এ হলে আসন রয়েছে ৫০০টি। হলটিতে লিফট, দুই হাজার বর্গফুটের পাঠাগার,ইনডোর গেমসের সুবিধা,রান্নাঘর,প্রার্থনাকক্ষ,কমনরুমেরও ব্যবস্থাও রয়েছে।