মেইন ম্যেনু

চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী গণধর্ষণের শিকার!

মাগুরা সদর উপজেলায় চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রীকে বাড়িতে একা পেয়ে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ০২ অক্টোবর সকালে এ ঘটনা ঘটে উপজেলার শ্রীফলতলা গ্রামে।

শিশুটিকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

মাগুরা সদর হাসপাতালের গাইনি বিভাগের চিকিৎসক সামসুন নাহার লাইজু বলেন, ‘মেয়েটির শরীর থেকে রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাকে তিনটি সেলাই দেওয়া হয়েছে। তবে সে আশঙ্কামুক্ত।’

মাগুরা জেলা পুলিশ সুপার এ কে এম এহসান উল্লাহ জানান, শিশুটি স্থানীয় একটি মাদ্রাসার আবাসিক ছাত্রী। সকালে সে বাড়ি আসে। তখন বাড়িতে কেউ ছিল না। এক আত্মীয় মারা যাওয়ায় শিশুটির মা-বাবা সেখানে গিয়েছিল। সে তখন বারান্দায় একা বসেছিল। এ সময় সে গণধর্ষণের শিকার হয়।’

এ ঘটনায় জড়িতদের ধরতে পুলিশের একাধিক টিম মাঠে রয়েছে বলে জানান পুলিশ সুপার।

শিশুটির বড় বোন অভিযোগ করে বলেন, তার বোনকে একা পেয়ে প্রতিবেশী সাবর আলী (২৩), মিজান (৩৫) ও মহিদুল (২৩) মুখে কাপড় বেঁধে ধর্ষণ করে। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে ফেলে পালিয়ে যায়।

পরে শিশুটিকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান শিশুটির বড় বোন।