মেইন ম্যেনু

ছাত্রদলের বিদ্রোহী নেতাদের ‘পাল্টা’ অভিযোগ

বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় ‘পাল্টা’ অভিযোগ করে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে পদবঞ্চিত ছাত্রদল নেতারা।

প্রথম থেকেই ‘বিদ্রোহী’ নেতা হিসেবে পরিচিত কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রয়েল সংবাদকর্মীদের কাছে অভিযোগ করেন, পদবঞ্চিত ছাত্র নেতাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি নস্যাৎ করতে কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসানের নির্দেশে তার অনুসারীরা বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়, ছাত্রদল কার্যালয়ে ভাংচুর হয়েছে। শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মুর‌্যাল ভাঙচুর করেছেন।

রয়েলের দাবি, পরিকল্পিতভাবে ছাত্রদলের সভাপতি রাজিব আহসান এবং সাধারণ সম্পাদক পদবঞ্চিত নেতাদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি কলঙ্কিত করার চেষ্টা চালিয়েছে।

তিনি আরো বলেন, ‘এর আগেও রাজিব আহসান এবং আকরামুল হাসান দলীয় কার্যালয়ে ভাংচুরের দায়ে বহিষ্কার হয়েছে। আমি বিশ্বাস করি জাতীয়তাবাদী শক্তির কোনো কর্মী বা সমর্থক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মুর‌্যাল ভাঙচুর করতে পারে না। দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর করতে পারে না।’ অবশ্য ভাংচুরের ঘটনায় বিএনপির যুগ্ম মহাসচি অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী আহমেদ সরকারকে দায়ী করেছেন।

আর ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক আকরামুল হাসান বলেছেন, আমি বিশ্বাস করি ছাত্রদলের কোনো নেতাকর্মী সরকারের উসকানিতে পা দেবে না। পদবঞ্চিত হলে সমন্বয়ের সুযোগ আছে।