মেইন ম্যেনু

‘জঙ্গি’ খাদিজার অবস্থা আশঙ্কাজনক

রাজধানীর আজিমপুরে জঙ্গি আস্তানা থেকে আহত অস্থায় ৩ নারী জঙ্গিকে আটক করেছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। পুলিশ প্রহরায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তারা। তবে এদের মধ্যে জঙ্গি খাদিজার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

এর আগে গতকাল শনিবার সন্ধ্যায় ২০৯/৫ লালবাগে রোডে দারুল হুদা ইন্টারন্যাশনাল ক্যাডেট মাদ্রাসার ৪ তলা ভবনের ২য় তলার একটি বাসায় পুলিশের এই অভিযান পরিচালিত হয়। ওই ঘটনায় করিম নামে একজন নিহত হয়। এছাড়া ‘জঙ্গি’ সন্দেহে আহত ৩ নারীকে আটক করা হয়। আটককৃ তিনিজন হলেন- শারমিন, শায়লা এবং খাদিজা।

ঢামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগের আবাসিক সার্জন (আরএস) ড. জেসমিন নাহার বলেন, আহতদের মধ্যে খাদিজার অবস্থা আশংকাজনক। তার মাথায় ধারালো অস্ত্র দ্বারা কোপ দেয়া হয়েছে। তার বিষয়ে এখনো কোনো মন্তব্য করা যাচ্ছে না।

এদিকে, আটক বাকি দুজনের মধ্যে একজন ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা বলে জানা গেছে। তবে বিষয়টি নিশ্চিত নয় বলে তার নাম প্রকাশ করেননি চিকিৎসকরা।

ড. জেসমিন বলেন, তাকে গাইনির ডাক্তার দেখানো হয়েছে। আল্ট্রাসনোগ্রাফী করার পরেই অন্তঃসত্ত্বার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।

তাদের শারীরিক অবস্থার বিষয়ে তিনি বলেন, শারমিনের অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। এ সময় ৩-৪ টি বুলেট বের করা হয়। আর শায়লার শরীরে ধারালো কিছুর আঘাত রয়েছে। সে আশঙ্কামুক্ত।

এদিকে, ঢামেকে এই নারী জঙ্গিদের কঠোর নিরাপত্তা বলয়ে রাখা হয়েছে। ডাক্তার ছাড়া কেবিনের ভেতর কাউকে ঢুকতে দেয়া হচ্ছে না। ডাক্তার কর্তৃক তাদের সুস্থ ঘোষণার পর তাদের জিজ্ঞাসা বাদ করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।