মেইন ম্যেনু

জঙ্গি মুরাদের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন : ডিএনএ ও ভিসেরা নমু্না সংগ্রহ

রাজধানীর মিরপুরের রূপনগরে পুলিশের গুলিতে নিহত জঙ্গিনেতা মুরাদের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। তার শরীরের ডিএনএ ও ভিসেরা সংগ্রহ করা হয়েছে। সেগুলো পরীক্ষার জন্য পরীক্ষাগারে পাঠিয়েছেন ঢাকা মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক মেডিসিন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. সোহেল মাহমুদ।

তিনি জানান, শনিবার বিকেল সোয়া ৩টার দিকে জঙ্গি মুরাদের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন করা হয়েছে। তার শরীরের ৯টি স্থানে গুলির চিহ্ন পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ৩টি মাথায় ও বাকিগুলো শরীরের বিভিন্ন স্থানে।

কর্তব্যরত ডাক্তার মাহমুদ বলেন, মুরাদের শরীরের ডিএনএ নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এজন্য মুরাদের মাসল ও মাথার চুল সংগ্রহ করা হয়েছে।

মৃত্যুর আগে মুরাদ মাদক নিয়েছিল কিনা কিংবা শক্তিবর্ধক কোনো মেডিসিন সে সেবন করেছিল কিনা তা জানতে রক্তসহ ভিসেরা নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। সেগুলো পরীক্ষা করে দেখা হবে।

উল্লেখ্য, গুলশান হামলার মাস্টারমাইন্ড তামিম চৌধুরীর ‘ডান হাত’ হিসেবে কাজ করছিলেন মুরাদ। তিনি নিজের ঠিকানা গোপন করে ভুয়া ঠিকানায় মিরপুর বিভাগের রূপনগরে ৩৩ নং সড়কের ৬ তলাবিশিষ্ট ৩৪ নং বাসার ৬ তলায় বাসা ভাড়া নেন।

ভাড়াটিয়া তথ্য ফরমে স্থায়ী ঠিকানার ঘরে যে ঠিকানা ব্যবহার করেছিলেন তা ভুয়া বলে জানিয়েছে পুলিশ। একই সঙ্গে তিনি নিজের নামও দিয়েছিলেন জাহাঙ্গীর।

শুক্রবার রাতে রাজধানীর মিরপুরের রূপনগর আবাসিক এলাকার একটি জঙ্গি আস্তানায় পুলিশের অভিযানে নিহত হন মুরাদ। এরপরই জানা যায় তার ভুয়া নামে বাসা ভাড়া নেয়ার তথ্য।